২:১২ পিএম, ১৮ জানুয়ারী ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ১ জমাদিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

অর্থনীতি: বাংলাদেশ হবে ৩১তম, পাকিস্তান ২৫

২৭ ডিসেম্বর ২০১৭, ০৪:১০ পিএম | সাদি


এসএনএন২৪.কম : সামনের দিনগুলোতে এশিয়ার দেশগুলোর অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি অব্যাহত থাকবে।  আর আগামী এক দশকে অর্থনীতির আকারে যুক্তরাষ্ট্রকে ছাড়িয়ে যাবে চীন।  সম্প্রতি ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক লিগ টেবিল (ডব্লিওইএলটি) নামের এক প্রতিবেদনে এমন তথ্য উঠে এসেছে। 

প্রতিবেদনে এশিয়াকে আগামী দিনের অর্থনীতির ‘পাওয়ার হাউস’ বলে উল্লেখ করা হয়েছে।  এতে বলা হয়েছে, বাংলাদেশ তার বর্তমান ৪৩তম অবস্থান থেকে ২০৩২ সালের মধ্যে ৩১তম অবস্থানে উঠে আসবে।  আর পাকিস্তান তাদের বর্তমান ৪১তম অবস্থান থেকে ২০৩১ সালের মধ্যে উঠে আসবে ২৫তমতে। 

আন্তর্জাতিক অর্থনৈতিক সংস্থা সেন্টার ফর ইকনোমিকস অ্যান্ড বিজনেস রিসার্চ (সিইবিআর) প্রতিবেদনটি প্রকাশ করেছে।  এতে বলা হয়েছে, অর্থনীতির আকারে আগামী বছরই ব্রিটেন ও ফ্রান্সকে ধরে ফেলবে ভারত।  পঞ্চম অর্থনীতির দেশ হতে যাচ্ছে তারা।  ২০২৭ সালের মধ্যে জার্মানিকে ছাড়িয়ে তৃতীয় স্থানটি দখল করে নেবে ভারত। 

ধারণা করা হচ্ছে, ২০৩২ সালের মধ্যে বিশ্বের প্রধান চার অর্থনৈতিক শক্তির তিনটিই হবে এশিয়ায়: চীন, ভারত ও জাপান।  দক্ষিণ কোরিয়া ও ইন্দোনেশিয়াও প্রবেশ করবে শীর্ষ দশে।  এছাড়া তাইওয়ান, থাইল্যান্ড, ফিলিপাইন ও পাকিস্তান থাকবে শীর্ষ ২৫ দেশের মধ্যে। 

সেন্টার ফর ইকনোমিকস অ্যান্ড বিজনেস রিসার্চের সিনিয়র অর্থনীতিবিদ অলিভার কলডসেইকে বলেন, ‘সবচেয়ে মজার বিষয় যেটা মনে হচ্ছে, ২০৩২ সালের মধ্যে বিশ্বের শীর্ষ ১০ অর্থনীতির দেশের মধ্যে পাঁচটিই হবে এশিয়ার।  সূচকে নিচের দিকে নেমে আসবে ইউরোপের অর্থনীতি।  যুক্তরাষ্ট্রও হারাবে শীর্ষ স্থান। ’

এই অর্থনীতিবিদ আরো বলেন, ‘আগামী ১৫ বছরে বিশ্ব অর্থনীতির রূপান্তরে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে প্রযুক্তি ও নগরায়ন। ’ অবশ্য সম্প্রতি চীনের প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং মন্তব্য করেন, প্রবৃদ্ধি নয়, আর্থিক ঝুঁকি নিরসন, দূষণ কমানো ও দারিদ্র্য দূরীকরণে গুরুত্ব দিচ্ছেন তারা। 

ওয়ার্ল্ড ইকনোমিক লিগ টেবিল প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ২০২০ সালের মধ্যে ফ্রান্সের চেয়ে এগিয়ে যাবে ব্রিটেনের অর্থনীতি।  ব্রেক্সিটকে যতটা শঙ্কাপূর্ণ মনে হয়েছিল প্রকৃতপক্ষে তেমনটা হবে না।  আট বছরের মধ্যে অর্থনীতিতে এগিয়ে আসবে ব্রাজিলও।  ষষ্ঠ অর্থনীতির দেশ হবে তারা। 

২০২৩ সালের মধ্যে শীর্ষ দশ থেকে ছিটকে পড়বে ইতালি।  ২০২৯ সালে তাদের অবস্থান দাঁড়াবে ১৩তমতে। 

Abu-Dhabi


21-February

keya