৯:২৩ এএম, ২৭ মার্চ ২০১৯, বুধবার | | ২০ রজব ১৪৪০




উন্নত মানের ব্রেস্ট ক্যান্সার চিকিৎসা এখন বাংলাদেশে

১১ মার্চ ২০১৯, ১২:১৩ পিএম | জাহিদ


এসএনএন২৪.কম : উন্নত মানের ব্রেস্ট ক্যান্সার চিকিৎসায় এখন বাংলাদেশে হচ্ছে।  এক সময় আমাদের দেশের লোকজনের মধ্যে ধারণা ছিল ক্যান্সার মানেই নিশ্চিত মৃত্যু।  ক্যান্সার চিকিৎসাও দেশে তুলনামূলকভাবে অপ্রতুল ছিল।   ক্যান্সারের পূর্ণ চিকিৎসা সেবা দিচ্ছে বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি প্রতিষ্ঠান। 

দেশে মরণব্যাধি ক্যান্সারের যে সব প্রতিষ্ঠান পূর্ণ চিকিৎসা সেবা নিশ্চিত করছেন তাদের মধ্যে আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ অন্যতম।  প্রতিষ্ঠানটিতে বিভিন্ন ক্যান্সারের চিকিৎসার পাশাপাশি ইংল্যান্ডের আদলে গড়ে তোলা হয়েছে ব্রেস্ট ইউনিট ও রিসার্চ সেন্টার।  স্তন ক্যান্সার চিকিৎসায় এটি বাংলাদেশের একটি মাইলফলক। 

বাংলাদেশের মানুষের জন্য স্তন ক্যান্সার চিকিৎসা সেবা সহজলভ্য করতে সম্প্রতি আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল ও যুক্তরাজ্যের ওয়াইকম হসপিটালের মধ্যে সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।  আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পক্ষে চেয়ারম্যান ড. আনোয়ার হোসেন খান এমপি ও যুক্তরাজ্যের বার্কিংহামশায়ার হেলথকেয়ার ন্যাশনাল হেলথ সার্ভিস (এনএইচএস) ট্রাস্ট পরিচালিত যুক্তরাজ্যের ওয়াইকম হসপিটালের পক্ষে ব্রেস্ট ইউনিটের অনকোপ্লাস্টিক ব্রেস্ট সার্জন ড. এসকে ফরিদ আহমদ সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করেন। 

আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ব্রেস্ট ইউনিট এন্ড রিসার্স সেন্টার (একেএমবিউআরসি) একটি ওয়ান স্টেপ ব্রেস্ট ক্লিনিক প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে।  স্তন ক্যান্সার নির্ণয় ও চিকিৎসায় গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখবে প্রতিষ্ঠানটি।  বাংলাদেশে একটি নিবেদিতপ্রাণ ব্রেস্ট ইউনিট ও গবেষণা চালুর জন্য আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল প্রথমবারের মতো এই পদক্ষেপ নিয়েছে।  এই হাসপাতালের ব্রেস্ট ইউনিট যুক্তরাজ্যের মতোই উন্নত প্রযুক্তি সম্পন্ন চিকিৎসা সুবিধা প্রদান করবে। 

প্রতিষ্ঠানটির ব্রেস্ট ইউনিট ও রিসার্চ সেন্টারের চিফ কনসালটেন্ট হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন ডা. আলি নাফিসা।  তিনি জানান, দেশে স্তন ক্যান্সারে আক্রান্তের সংখ্যা দিনে দিনে বাড়ছে।  এ রোগে বাড়ছে মৃত্যুর সংখ্যাও।  অপ্রতুল চিকিৎসা ব্যবস্থা আর সচেতনতার অভাবে ক্রমেই ভয়ানক পর্যায়ে রূপ নিচ্ছে মরণঘাতক স্তন ক্যান্সার।  শহরাঞ্চলের নারীরা এ রোগে আক্রান্ত হওয়ার পর কিছুটা চিকিৎসা সেবা পেলেও গ্রামীণ নারীরা এক্ষেত্রে পুরোপুরি বঞ্চিত হচ্ছেন।  আমাদের লক্ষ শহর, গ্রাম উভয় অঞ্চলের রোগীরা চিকিৎসা গ্রহণ করুক। 

তিনি আরো বলেন, আমাদের মেডিকেলে এই ইউনিটটি প্রতিষ্ঠা করা আমার দীর্ঘ দিনের স্বপ্ন ছিল, যা এখন বাস্তবে রূপান্তরিত হয়েছে।  এর ফলে স্তন সমস্যায় সম্মুখীন হওয়া রোগীরা চিকিৎসা সেবা নিতে পারবেন।  ইউনিটটি প্রতিষ্ঠার জন্য আমাদের চেয়ারম্যান ড. আনোয়ার হোসেন খান এমপির প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি।  একই সাথে আমাদের এখানে যুক্ত হওয়ার জন্য যুক্তরাজ্যের ওয়াইকম হসপিটালের অনকোপ্লাস্টিক ব্রেস্ট সার্জন ড. এসকে ফরিদ আহমদ স্যারের প্রতি ধন্যবাদ জ্ঞাপন করছি। 

উল্লেখ্য, ড. এসকে ফরিদ আহমেদ দীর্ঘ ১৯ বছর ধরে যুক্তরাজ্যের হাসপাতালগুলোতে চিকিৎসা সেবা দিচ্ছেন।  তিনি ৪০ দিন পরপর টানা ১৪ দিন আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা দেবেন।  এর আগে তিনি আনোয়ার খান মডার্ণ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ব্রেস্ট ইউনিটের প্রতিষ্ঠাতা ড. আলি নাফিসাসহ অনেক সার্জনকে প্রশিক্ষণ দিয়েছেন ড. এসকে ফরিদ আহমেদ। 

স্তন চিকিৎসায় এই ইউনিটে যে সব সেবা প্রদান করা হচ্ছে সেগুলো হলো : ব্রেস্ট ক্যান্সার নির্ণয়; এফএনএসি, কোর, পাঞ্চ বায়োপসি করা; আলট্রাসনো গাইডেড করা; ব্রেস্টের আল্ট্রাসনোগ্রাফি ও ম্যামোগ্রাফি করা; পুরো ব্রেস্ট না কেটে ব্রেস্ট ক্যান্সারের চিকিৎসা; ব্রেস্ট টিউমারের অপারেশন; নিপল দিয়ে পানি রক্ত পড়ার চিকিৎসা, যে সমস্ত ক্যান্সার বোঝা যায় না তার জন্য ওয়ার গাইডেড ওয়াইড লোকাল একসিশান করার ব্যবস্থা, ব্রেস্ট ইনফেকশনের চিকিৎসা, ব্রেস্ট ছোট ও বড় করাসহ বিভিন্ন দেবা দেয়া হয়।