৩:২৩ এএম, ১৯ ডিসেম্বর ২০১৮, বুধবার | | ১০ রবিউস সানি ১৪৪০




কিডনির পাথর রোধে যা করণীয়

১৭ ফেব্রুয়ারি ২০১৮, ১২:৩৭ পিএম | নকিব


এসএনএন২৪.কম :  দেশে কিডনির অসুখ দিন দিন বাড়ছে।  কিডনি আমাদের শরীরের একটি গুরুত্বপূর্ণ অঙ্গ।  এটি শরীর থেকে বিষাক্ত পদার্থগুলোকে বের করে দিতে সাহায্য করে।  অনেকেই কিডনির পাথরের সমস্যায় ভোগে। 

কিডনির পাথরের সমস্যা সমাধানে কিছু খাবার এড়িয়ে যাওয়া ভালো।  আর কিডনি সমস্যার সংক্রান্ত একটি প্রতিবেদন প্রকাশ করেছে জীবনধারা বিষয়ক ওয়েবসাইট বোল্ডস্কাই। 

১. ক্যাফেইন এড়িয়ে যান

কিডনির পাথর থাকলে পর্যাপ্ত পরিমাণ পানি পান করা প্রয়োজন।  তবে ক্যাফেইন জাতীয় খাবার যেমন চা, কফি কিন্তু কম পান করতে হবে।  দিনে দুই কাপের বেশি চা, কফি বা কোমল পানীয় পান করা থেকে বিরত থাকুন।  ক্যাফেইন জাতীয় খাবার বেশি খাওয়া শরীরে পানি শূন্যতা তৈরি করতে পারে। 

২. খুব বেশি প্রোটিনযুক্ত খাবার

প্রোটিন সমৃদ্ধ খাবার মাংস বা মাছ অবশ্যই খাবেন, তবে মধ্যম পরিমাণে।  সবচেয়ে ভালো হয় লিন মিট বা মুরগির মাংস খেলে।  তবে সেটিও হতে হবে খুব কম তেলে রান্না করা।  আর খুব মশলা যুক্ত খাবার এড়িয়ে যান। 

৩. সোডিয়াম সমৃদ্ধ খাবার

সোডিয়াম সমৃদ্ধ খাবার কম খান।  প্রক্রিয়াজাত খাবার, ক্যানড খাবার, যেগুলোর মধ্যে বেশি পরিমাণে লবণ থাকে, সেগুলো কম খান। 

৪. ক্যালসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার

কিডনির সমস্যা থাকলে ক্যালসিয়াম সমৃদ্ধ খাবার কম খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা।  মাছের তেল ও ভিটামিন ডি খাওয়ার ক্ষেত্রেও চিকিৎসকের পরামর্শ নিন। 

৫. বেশি চর্বি জাতীয় খাবার

বেশি চর্বি জাতীয় খাবার এড়িয়ে যান।  ননিহীন দুগ্ধ জাতীয় খাবার খান। 

৭. মদ্যপান বন্ধ করুন

যাদের ইউরিক অ্যাসিড পাথরের সমস্যা রয়েছে তারা মদ্যপান বন্ধ করে দিন।  অ্যালোকোহল বেশি শরীরে গেলে পিউরিন লেভেল বেড়ে যায়।  যা ইউরিক অ্যাসিড বাড়িয়ে তোলে। 

৮. ব্যায়াম করুন
 
প্রতি দিন ব্যায়াম করলে কিডনিতে পাথর হওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দেয়।  এতে পাথর জমার মতো অবস্থা তৈরি হতে বাধার সৃষ্টি করে।  এতে ওজনও নিয়ন্ত্রণে থাকবে এবং কিডনির পাথরের সমস্যা অনেকাংশে কমিয়ে দেবে।