৭:১৯ এএম, ২১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, বৃহস্পতিবার | | ২৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৩৮

South Asian College

কোমর সোজা করে রুখে দাঁড়াতে হবে : মির্জা ফখরুল

০১ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০:৫৮ পিএম | রাহুল


এসএনএন২৪.কমঃ সমস্ত ভয়-ভীতি ও জেল জুলুমকে উপেক্ষা করে বিএনপি নেতাকর্মীদের গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনার সংগ্রামে অবতীর্ণ হওয়ার আহ্বান জানিয়েছেন দলের মহাসচিব বিএনপির মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।  তিনি বলেছেন, ‘আজকে আমাদের রুখে দাঁড়াবার পালা।  আজকে আমাদের কোমর সোজা করে দাঁড়াতে হবে। ’

দলের ৩৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আজ শুক্রবার সন্ধ্যায় ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপির আয়োজনে বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত ও দুস্থদের মধ্যে ঈদ সামগ্রী বিতরণ অনুষ্ঠানে মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। 

বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘আমরা খুব পরিষ্কার করে বলতে চাই, যারা এই অপকর্মের সাথে লিপ্ত আছেন, যারা আজকে গণতন্ত্রকে হত্যা করছেন, যারা মানুষের অধিকার কেড়ে নিচ্ছেন তাদের দিন ফুরিয়ে এসেছে।  আজকে মানুষ জেগে উঠছে এবং মানুষ তাদের পরাজিত করবে। ’

মির্জা ফখরুল বলেন, ‘আজকে আমাদের রুখে দাঁড়াবার পালা।  আজকে আমাদের কোমর সোজা করে দাঁড়াতে হবে।  ভয়-ভীতিকে উপেক্ষা করে, সমস্ত জেল জুলুমকে উপেক্ষা করে, আমাদেরকে গণতন্ত্রের সংগ্রামে অবতীর্ণ হতে হবে, গণতন্ত্রকে উদ্ধার করতে হবে, আমাদের অধিকারকে ফিরিয়ে আনতে হবে।  তাই আজকে আসুন, আমরা শপথ গ্রহণ করি যে সবাই ঐক্যবদ্ধ হয়ে, আমাদের গণতন্ত্র ফিরিয়ে আনবার যে সংগ্রাম, সেই সংগ্রামে আমরা যেন সবাই অংশগ্রহণ করতে পারি এবং জয়ী হতে পারি।  এই অপশক্তি, ফ্যাসিস্ট শক্তি, এই একনায়ক শক্তিকে পরাজিত করতে পারি, এই হোক আজকে আমাদের প্রত্যয়, এই হোক আমাদের শপথ। ’

বিএনপির মহাসচিব বলেন, ‘বন্ধুগণ এই সরকার একে একে এই দেশের সকল প্রতিষ্ঠানগুলোকে ধ্বংস করেছে।  আপনারা কিছুদিন আগে দেখেছেন, সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী নিয়ে এই সরকার যে ভয়াবহ একটা ধ্বংসযজ্ঞে নেমেছে যা আজকে সারা বাংলাদেশের রাষ্ট্রের যে অস্তিত্ব, সেই রাষ্ট্রের অস্তিত্বকে আজকে দুর্বল করেছে।  সেই রাষ্ট্রকে আজকে হুমকির মুখে ফেলেছে।  আজকের পত্রিকাতেও দেখবেন, খুব পরিষ্কার করে বলা হয়েছে, এই সরকারের মন্ত্রীরা এবং আওয়ামী লীগের নেতারা যে ভাষায় বিচার বিভাগের বিরুদ্ধে, প্রধান বিচারপতির বিরুদ্ধে, হাইকোর্টের বিরুদ্ধে, সুপ্রিম কোর্টের বিরুদ্ধে কথা বলছে তা পৃথিবীর ইতিহাসে কোনো গণতান্ত্রিক দেশে, কোনো রাষ্ট্রে এ ধরনের ভাষা ব্যবহার করা হয় নাই।  বন্ধুগণ এই অবস্থা থেকে আমাদের বেরিয়ে আসতে হবে। ’

এ সময় আরো বক্তব্য দেন ঠাকুরগাঁও জেলা বিএনপির সভাপতি তৈমুর রহমান ও সাধারণ সম্পাদক মির্জা ফয়সল আমিন।