৫:১৭ এএম, ১৮ ডিসেম্বর ২০১৭, সোমবার | | ২৯ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

ঘরে বসেও করা যায় কিডনি ডায়ালাইসিস

০৫ ডিসেম্বর ২০১৭, ০৮:৪৭ এএম | নিশি


এসএনএন২৪.কম : কিডনি বিকল হলে শুধু হাসপাতাল নয় ঘরে বসেও করা যায় ডায়ালাইসিস।  কারো সাহায্য ছাড়া রোগি নিজেই করতে পারেন রক্ত পরিশোধন।  এতে হাসপাতালের তুলনায় খরচও কম।  বিদেশে এই পদ্ধতি জনপ্রিয় হলেও দেশে নেই তেমন প্রচার। 

ঘরে বসেই ৭ বছর ধরে কিডনি ডায়ালাইসিস করছেন সালেহা আক্তার। 

কখনো পরিবারের সদস্যদের সহায়তায়, কখনো নিজেই করেন ডায়ালাইসিস।  সময় লাগে মাত্র ত্রিশ মিনিট। 

কিডনি বিকল হলে হাসপাতালে হিমো-ডায়ালাইসিস বা মেশিনে রক্ত পরিশোধন করতে সময় লাগে ৪ থেকে ৫ ঘন্টা।  এর তুলনায় অনেক সহজ পদ্ধতি হলো পেরিটোনিয়াল ডায়ালাইসিস বা সিএপিডি।  এতে রোগির নাভির নিচে স্থায়ীভাবে একটি ক্যাথেটার বসানো হয়। 

এরপর বাড়িতেই প্রতিবার ২ লিটার বিশেষ তরল ভরে পরিশোধন করা হয় রক্ত।  এই ডায়ালাইসিসের সময় ঘরে-বাইরে যে কোনো কাজ করতে পারেন রোগি। 

চিকিৎসকেরা বলছেন, দেশে প্রায় ১৭ হাজার রোগি নির্ভর করছেন কিডনি ডায়ালাইসিসের ওপর।  এর মধ্যে মাত্র ৬০০ মানুষ পেরিটোনিয়াল ডায়ালাইসিস করছেন। 

হাসপাতালে হেমোডায়ালাইসিস করাতে প্রতিবারে খরচ এক থেকে ৮ আট হাজার টাকা হলেও, ঘরে ডায়ালাইসিসের খরচ মাত্র সাড়ে ৪০০ টাকা।  হৃদরোগীদের জন্য এই পদ্ধতি বেশি নিরাপদ। 

দেশের সরকারি-বেসরকারি ১৬টি হাসপাতালেও রয়েছে সিএপিডি সুবিধা।  তবে এর প্রসারে আপাতত কোনো পরিকল্পনা নেই স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের। 

দেশে প্রায় দুই কোটি মানুষ কিডনি জটিলতায় ভুগছেন।  কিডনি বিকল হলে মাত্র ২০ ভাগ রোগি পান ডায়ালাইসিসের সুযোগ।  ব্যয়বহুল হওয়ায় সেবা না পেয়ে প্রতিবছর মারা যাচ্ছে ৩০ হাজার মানুষ।