১২:৫৭ পিএম, ২৫ আগস্ট ২০১৯, রোববার | | ২৩ জ্বিলহজ্জ ১৪৪০




পাঁচশ পর্নসাইট বন্ধ করেছে সরকার

৩০ নভেম্বর -০০০১, ১২:০০ এএম | মোহাম্মদ হেলাল


এসএনএন২৪.কম :  পাঁচ শতাধিক পর্নসাইট বন্ধ করে দিয়েছে টেলিযোগাযোগ নিয়ন্ত্রক সংস্থা (বিটিআরসি)।  সোমবার সন্ধ্যায় এ ব্যাপারে সংশ্লিষ্ট সব পক্ষকে নির্দেশনা পাঠানো হয়েছে বলে ।  বিটিআরসির সচিব মুখপাত্র সরওয়ার আলম  ঢাকাটাইমসকে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন। 

অপ্রাপ্তবয়স্করা পর্নে আসক্ত হয়ে যাচ্ছে-বিভিন্ন গবেষণায় এমন তথ্য আসার পর ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয় পর্নসাইট বন্ধের বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেয়।  বিশেষ করে স্মার্টফোন সহজলভ্য হওয়ায়র পর কিশোরদের মধ্যে পর্ন আসক্তি তাদের মানসিক স্বাস্থ্যের জন্য ক্ষতিকর বলে সতর্ক করেছেন বিশেষজ্ঞরা। 

গত ২৮ নভেম্বর অনলাইন আপত্তিকর কনটেন্ট নিয়ন্ত্রণ সংক্রান্ত সভায় বাংলাদেশে ইন্টারনেটে পর্নগ্রাফি ও আপত্তিকর কন্টেন্ট প্রকাশ বন্ধে একটি কমিটি গঠন করে টেলিযোগাযোগ বিভাগ।  এই কমিটি পর্নগ্রাফি ও আপত্তিকর কনটেন্টের ওয়েব তালিকা প্রস্তুত করে এগুলো বন্ধে তিন স্তরের কারিগরি প্রস্তাবনা তৈরি করবে বলে জানানো হয়েছিল।  ১৫ দিনের মধ্যে এই তালিকা ও কারিগরি প্রস্তাবনা পাওয়া যাবে বলে জানিয়েছিলেন তারানা হালিম। 

কোন কোন সাইট বন্ধ হয়েছে, সে তালিকা এখনও প্রকাশ করেনি বিটিআরসি।  তবে গত ১২ ডিসেম্বর প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম জানান, শুরুতে দেশি পর্নসাইটগুলো বন্ধ করা হবে।   

বিটিআরসির সচিব মুখপাত্র সরওয়ার আলম  ঢাকাটাইমসকে বলেন, ‘গত পরশু (সোমবার) থেকেই এই কার্যকর করা হয়েছে।  বিস্তারিত আপনাদেরকে আরও পর বলতে পারবো। ’

তবে এই প্রক্রিয়া কতটুকু সফল হবে, সে নিয়ে সংশয়ের কথা বলেছেন তথ্য প্রযুক্তি বিশেষজ্ঞরা।  কারণ, ভারত এবং যুক্তরাজ্যে পর্ন সাইট বন্ধ করার চেষ্টা সফল হয়নি তেমন।  প্রতিমন্ত্রী তারানা হালিম অবশ্য বলছেন, যদি ৭০ থেকে ৮০ ভাগও তারা সফল হন, তাহলে সেটাই অনেক বড় কাজ হবে। 

বাংলাদেশ থেকে মোট কতগুলো পর্ন সাইটে ঢোকা যায়, সেবিষয়ে সুনির্দিষ্ট তথ্য নেই। 

এন এ কে


keya