৭:২৭ এএম, ২১ অক্টোবর ২০১৭, শনিবার | | ৩০ মুহররম ১৪৩৯

South Asian College

পটিয়ায় কোটি টাকার জায়গা দখল করতে সন্ত্রাসীদের মহড়া

০৬ অক্টোবর ২০১৭, ০৯:২১ পিএম | রাহুল


আনোয়ার আলমদার,পটিয়া (চট্টগ্রাম) : চট্টগ্রামের পটিয়ায় কোটি টাকার অধিক মূল্যের একটি জায়গা দখল করতে সন্ত্রাসীরা প্রতিনিয়ত মহড়া দিচ্ছে। 

চট্টগ্রাম-কক্সবাজার আরকান মহা সড়কের পাশে পটিয়া নতুন বাস স্টেশন এলাকায় দিনে ও রাতে এ মহড়া দেওয়ার কারণে স্থানীয়রা আতংকে রয়েছেন।  ইতোমধ্যে শিল্প প্রতিষ্ঠান এ.টি.আর পোল্ট্রি ফার্ম লিমিটেডের সিকিউরিটি ইনচার্জ মোঃ মাহবুব জামান (৫৫) ও কেয়ারটেকার মোঃ জাহাঙ্গীর আলম রানা (৫৫) প্রাণের ভয়ে পালিয়েছে। 

যে কোন মুহুর্তে অপ্রীতিকর কোন ঘটনা ঘটতে পারে।  সন্ত্রাসীরা বৃহস্পতিবার রাতে ও শুক্রবার সকালে দুই দফা মোটরসাইকেল নিয়ে পুনরায় মহড়া দিয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।  এর আগে নির্মাণাধীন এ পোল্ট্রি শিল্পের প্রধান ফটকে জোরপূর্বক তালা ঝুলে দিয়েছে।  এ সংক্রান্তে একটি অভিযোগ থানা পুলিশের কাছে রয়েছে।  কিন্তু পুলিশ এর কোন সুরহা করতে পারেনি।  ফলে অনিশ্চিত হয়ে পড়েছে এ.টি.আর পোল্ট্রি শিল্পের নির্মাণ ও উৎপাদন কাজ। 

স্থানীয় ও বিভিন্ন সূত্রে জানা গেছে, চট্টগ্রামের শিল্প প্রতিষ্ঠান এ, জামান এন্ড ব্রাদার্সের মালিক নুরুল আলম পটিয়া উপজেলার কচুয়াই ইউনিয়নে মহা সড়কের পাশে একটি পোল্ট্রি ফার্ম নির্মাণ কাজ শুরু করেন।  নির্মাণাধীন ১০৪ শতক এলাকা জুড়ে ওই পোল্ট্রি শিল্পে দীর্ঘদিন কেয়ারটেকার হিসেবে কর্মরত ছিলেন পটিয়া পৌর সদরের গোবিন্দারখীল এলাকার মৃত রমিজ আহমদের পুত্র মো. জাহাঙ্গীর আলম রানা। 

সেখানে মাটি ভরাট, বাউন্ডারী ওয়ালসহ সেমিপাকা গৃহ নির্মাণপূর্বক  পোল্ট্রি শিল্পের নির্মাণ কাজ করে।  জায়গা খরিদ করার পর শিল্প প্রতিষ্ঠানের মালিক নুরুল আলম ২০১১ সালে আই,টি,সি,এল-এর কাছে ১ বছরের জন্য জায়গাটি ভাড়া দেন।  এলাকার কিছু যুবক তিন কোটি টাকা মূল্যের এ জায়গাটি জবর দখল করার জন্য পায়তারা করে আসছিল। 

এর ধারাবাহিকতায় জায়গাটি দখল করতে কিছুদিন ধরে মোটসাইকেল নিয়ে মহড়া দিচ্ছে।  শিল্প প্রতিষ্ঠানের সিকিউরিটি ইনচার্জ মোঃ মাহবুব জামান বাদী হয়ে নজরুল ইসলামসহ ৫ জনের নাম উল্লেখ করে ও অজ্ঞাতনামা ৫/৬ এর বিরুদ্ধে একটি লিখিত অভিযোগ করেছেন। 

শিল্প প্রতিষ্ঠান এ, জামান এন্ড ব্রাদার্সের মালিক নুরুল আলম বলেন, পটিয়ার কচুয়াই ইউনিয়নে পোল্ট্রি শিল্প নির্মাণ কাজ শুরু করার আগ থেকে এলাকার কিছু যুবক বিভিন্নভাবে ঝামেলা শুরু করেছিল।  তারা এখনো লেগে রয়েছে।  কিছুদিন আগে কেয়ারটেকার মো. জাহাঙ্গীর আলম রানাকে ভয়ভীতি দেখিয়ে বের করে প্রধান ফটকে তালা ঝুলিয়ে দেয়। 

তাদের দাবি পোল্ট্রি শিল্পের নির্মাণ কাজ শেষ করতে হলে তাদেরকে ৫০ লাখ টাকা চাঁদা দিতে হবে।  বর্তমানে তিনি, প্রতিষ্ঠানের সিকিউরিটি ও কেয়ারটেকার নিরাপত্তাহীনতায় রয়েছেন বলে জানান।