২:৩৬ এএম, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭, শুক্রবার | | ২৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

পোপের ভিডিওবার্তায় বাংলাদেশকে শুভেচ্ছা

২২ নভেম্বর ২০১৭, ০৯:৩৮ এএম | মুন্না


এসএনএন২৪.কম : বাংলাদেশ সফরে আসার আগে এদেশের মানুষকে শুভেচ্ছা ও বন্ধুত্বের বার্তা পাঠিয়েছেন রোমান ক্যাথলিক চার্চের প্রধান ধর্মগুরু পোপ ফ্রান্সিস।  পোপ ফ্রান্সিস বাংলাদেশে আসছেন ৩০ নভেম্বর। 

এক ভিডিও বার্তায় বাংলাদেশে খ্রিস্ট ধর্মের অনুসারীদের আশির্বাদ জানিয়েছেন তিনি।  পোপের ভিডিও বার্তাটি মঙ্গলবার ভ্যাটিকান রেডিওর ওয়েবসাইটে প্রকাশ করা হয়। 

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার আমন্ত্রণে আগামী ৩০ নভেম্বর বাংলাদেশ সফরে আসছেন পোপ ফ্রান্সিস।  ২ ডিসেম্বর পর্যন্ত তিনি বাংলাদেশে থাকবেন।  বাংলাদেশে আসার আগে ২৭ থেকে ৩০ নভেম্বর তিনি মিয়ানমার সফর করবেন। 

ভিডিও বার্তায় পোপ বলেছেন, বাংলাদেশের জনগণের সঙ্গে মিলিত হতে এবং তাদেরকে যিশুর পুনর্মিলন, ক্ষমা এবং শান্তির বাণী শোনানোর অপেক্ষায় আছেন। 

আর কয়েকদিনের মধ্যে বাংলাদেশ সফরের জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি।  বাংলাদেশের মানুষকে আমি শুভেচ্ছা ও বন্ধুত্বের বার্তা জানাতে চাই।  আমি অপেক্ষায় আছি সেই সময়ের, যখন আমরা মিলিত হব। 

বাংলাদেশ সফরে পোপ ফ্রান্সিস রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদ ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎ করবেন। 

এছাড়া বাংলাদেশের খ্রিস্টান ধর্মাবলম্বীদের একটি উপাসনা অনুষ্ঠানে তিনি পৌরহিত্য করবেন।  ওই অনুষ্ঠানে ১৬ জন ডিকনকে ধর্মযাজক পদে অভিষিক্ত করা হবে। 

বাংলাদেশের কার্ডিনাল, আর্চবিশপ ও বিশপদের সাক্ষাৎ দেবেন পোপ ফ্রান্সিস।  এছাড়া একটি নাগরিক সমাবেশে অংশগ্রহণ করবেন তিনি।  বিভিন্ন ধর্ম সম্প্রদায়, চার্চ, সরকারি-বেসরকারি ও সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সঙ্গে সৌজন্য সাক্ষাতেরও সূচি রয়েছে তার। 

বার্তায় পোপ ফ্রান্সিস তার এসব কর্মসূচির গুরুত্ব তুলে ধরার পাশাপাশি বাংলাদেশে তার সফরের প্রস্তুতিতে যারা পরিশ্রম করছেন, তাদের ধন্যবাদ জানিয়েছেন। 

তিনি বলেন, আপনাদের সঙ্গে আমার দিনগুলো যাতে আশা এবং অনুপ্রেরণাদায়ী হয়ে ওঠে সেজন্য আমি সবাইকে প্রার্থনা করার আহ্বান জানাচ্ছি। 

১৯৭০ সালের ২৬ নভেম্বর ভয়াবহ জলোচ্ছ্বাসের পর ঢাকার বিমানবন্দরে এক ঘণ্টার জন্য নেমেছিলেন পোপ ষষ্ঠ পল।  সেটাই ছিল বাংলাদেশে কোনো পোপের প্রথম পদার্পণ। 

এরপর ১৯৮৬ সালে বাংলাদেশে রাষ্ট্রীয় সফরে এসেছিলেন পোপ দ্বিতীয় জন পল।  তিন দশক পর তৃতীয়বারের মতো কোনো পোপ বাংলাদেশে আসছেন।