৬:০১ এএম, ১২ জুলাই ২০২০, রোববার | | ২১ জ্বিলকদ ১৪৪১




বাপ-দাদার জমি ফিরে পেতে চায় সাঁওতালরা

৩০ নভেম্বর -০০০১, ১২:০০ এএম | নিশি


এসএনএন২৪.কম : বাংলাদেশ আদিবাসী ইউনিয়নের প্রেসিডিয়াম সদস্য বিপ্লব চাকী বলেছেন, ‘গাইবান্ধার গোবিন্দগঞ্জ উপজেলার সাপমারা ইউনিয়নের সাঁওতালদের বাপ-দাদার জমি সরকার ফিরিয়ে না দিয়ে তাদের হয়রানি করছে।   ঘর-বাড়ি পুড়ে দেয়ার পর চার মাস পেরিয়ে গেলেও তাদের জমি ফিরিয়ে দেয়া হয়নি।  বরং সাঁওতাল ও স্থানীয় বাঙালিদের বিরুদ্ধে মামলা করে তাদের হয়রানি করা হচ্ছে। ’

তিনি বলেন, ‘সাঁওতালরা পুনর্বাসন  চায় না- বাপ-দাদার জমি ফেরত চায়। ’

শনিবার দুপুরে জেলার গোবিন্দগঞ্জ পৌর শহরের চার মাথায় এক মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশে এসব কথা বলেন আদিবাসী নেতা। 

উপজেলার সাহেবগঞ্জ বাগদা-ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটি এই কর্মসূচির আয়োজন করে। 

এ সময় উপস্থিত ছিলেন- বাংলাদেশ আদিবাসী উন্নয়ন কেন্দ্রীয় নেতা খরি শংকর, গাইবান্ধা জেলা জনউদ্যোগের নেতা প্রবীর চক্রবর্তী, গোবিন্দগঞ্জ সিপিবি সভাপতি তাজুল ইসলাম, ভূমি উদ্ধার সংগ্রাম কমিটির সম্পাদক শাহজাহান আলী সরকার, রিনা মার্ডী, জোসেফ সরেন, শিমুন মুরমু প্রমুখ। 

মানববন্ধন শেষে একটি বিক্ষোভ মিছিল বের হয়। 

গত ৬ নভেম্বর রংপুর চিনিকলের কর্মকর্তা-কর্মচারীরা বাগদাফার্মে আখ বীজ কাটতে গেলে খামারে বসতি গড়ে তোলা আদিবাসীরা বাধা দিলে দ্বন্দ্বের সূত্রপাত হয়।  চিনিকলের লোকজনের সঙ্গে আসা বহিরাগতরা হামলা শুরু করে।   আদিবাসীরা প্রতিরোধ করতে নামলে  সংঘর্ষ শুরু হয়।   এক পর্যায়ে  সেখানে পুলিশ যায়।  আদিবাসীদের ছোড়া তীরে আহত হন আট পুলিশ সদস্য।  আহত হন আদিবাসীরাও। 

এসব ঘটনায় এখন পর্যন্ত তিনজন আদিবাসী নিহত হয়েছেন। 



keya