৯:০৯ পিএম, ১৯ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার | | ১৬ জ্বিলকদ ১৪৪০




মেথি চায়ের ৫ উপকারিতা

২৯ জুন ২০১৯, ১০:২১ এএম | নকিব


এসএনএন২৪.কম : অসুখ-বিসুখ হলেই সুস্থ হতে মুঠো মুঠো ওষুধ সেবন করে থাকি।  অথচ প্রকৃতি কত অকৃপণ ভাবে সাজিয়ে রেখেছে নানা প্রাকৃতিক উপাদান।  যার সাহায্যে সহজে পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া ছাড়াই সুস্থ থাকা যায়। 

সেসবের মধ্যে আছে নানা ধরনের সবজি, ফল, মশলা এবং ভেষজ উপাদান।  এর মধ্যে অন্যতম মেথি।  আয়ুর্বেদ মতে, শরীর সুস্থ রাখতে মেথি গুরুত্বপূর্ণ উপাদান। 

সুগার নিয়ন্ত্রণে রাখতে মেথি চা দারুণ কার্যকরী? তাই যাঁরা ডায়াবেটিসে ভুগছেন, তাঁদের সুস্থ থাকতে অনেক সময়েই মেথি চা পানের পরামর্শ দেওয়া হয়ে থাকে।  সুগার ছাড়া অন্য আধি-ব্যাধিও দূর করে মেথি চা।  জেনে নিন সেগুলো। 

মেথি চায়ের উপকারিতা

সুগার নিয়ন্ত্রণে রাখে: এই মুহূর্তে বিশ্বে ক্রমশ বাড়ছে ডায়াবেটিস।  আগাম সাবধানতার জন্য তাই শুরু করতেই পারেন মেথ চা-পান।  বেঙ্গালুরুর পুষ্টিবিশেষজ্ঞ ডা. অঞ্জু সুদের মতে, ইনসুলিনের কার্য ক্ষমতা এবং পরিমাণ বাড়িয়ে দেয় মেথি চা।  ফলে, রোজ এই চায়ে চুমুক দেওয়া মানেই সুগার আপনার থেকে শতহস্ত দূরে।   

ওবেসিটি কমায়: সকালে খালি পেটে এক কাপ মেথি চা মানেই হজম ক্ষমতা বেড়ে যাওয়া।  একই সঙ্গে ঝরবে মেদও। 

কোষ্ঠকাঠিন্য দূরে পালাবে: মেথির মধ্যে থাকা অ্যাসিডিটি নিয়ন্ত্রণ করে হজমের যাবতীয় সমস্যা।  যেমন, আলসার, অম্বর ইত্যাদি।   একই সঙ্গে মেথির মধ্যে থাকা ফাইবার পেট পরিষ্কার রাখতে সাহায্য করে।  এতে দ্রুত হজম হয়। 

হৃদরোগের সম্ভাবনা কমায়: রোজ সকালে মেথি চা মানেই কোলেস্টেরল কম।  আর তাতে ধমনী, শিরার চর্বি থাকতে পারে না।  এতে রক্ত চলাচল ভালো হয়।  ভালো থাকে হার্ট।   

কিডনি ভালো রাখে: রোজ মেথি চা পান করলে পরিষ্কার থাকে কিডনিও।  মেথির প্রভাবে ইউরিন ক্লিয়ার থাকে।  কিডনিতে স্টোন হওয়ার সম্ভাবনা কমে। 

যেভাবে বানাবেন মেথি চা

এক চা-চামচ মেথি গুঁড়ো করে নিন।  এক কাপ ফুটন্ত গরম জলে ওই গুঁড়ো মিশিয়ে দিন।  এক চা-চামচ মধু মেশাতে পারেন।  চাইলে রোজের চা পাতা বা তুলসী পাতাও মেশানো যেতে পারে এতে। 

সমস্ত উপকরণ দিয়ে মিনিট তিনেক ভিজিয়ে রাখুন।  ছেঁকে নিয়ে গরমাগরম চুমুক দিন। 


keya