৮:২৬ এএম, ২১ নভেম্বর ২০১৭, মঙ্গলবার | | ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

মাদক ব্যবসায়ীরা যে দলেরই হোক না কেন, কারও রেহাই নেই

১২ নভেম্বর ২০১৭, ১২:০৩ পিএম | মুন্না


আজিজুল ইসলাম বারী, লালমনিরহাট প্রতিনিধি : লালমনিরহাট পুলিশ সুপার এসএম রশিদুল হক বলেছেন, মাদক ব্যবসায়ীরা যে দলেরই হোক না কেন, কারও রেহাই নেই।  সে যত শক্তিশালীই হোক না কেন কেউ রক্ষা পাবে না।  পৃথিবীর কোথাও মাদকমুক্ত কোন এলাকা নেই, কেয়ামত পর্যন্ত মাদক, জুয়া, দেহব্যবসাসহ কিছু অপরাধ আছে যা থাকবে।  এ অপরাধ গুলো শতভাগ নির্মূল করা সম্ভব নয়, তবে নিয়ন্ত্রণ করা সম্ভব। 

শনিবার রাতে আদিতমারী উপজেলার মহিষখোচা বহু মুখি উচ্চ বিদ্যালয় ও কলেজ মাঠে সন্ত্রাস, জঙ্গি, বাল্যবিয়ে, জুয়া ও মাদক নির্মূলে মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।  পুলিশ সুপার এস. এম রশিদুল হক আরো বলেন, এ জেলায় যোগদানের গত ১৪ মাসে ১১৫৭টি মাদক মামলা আর ১২৮০ জনকে গ্রেফতার করা হয়েছে। 

এসময় ৩ হাজার কেজি গাঁজা, ২৩ হাজার বোতল ফেন্সিডিল, ১২ হাজার পিস ইয়াবা ও ১৫৭৬৪ পুড়িয়া হিরোইন উদ্ধারসহ এক হাজার ২৮০ জন মাদক ব্যবসায়ীকে গ্রেফতার করা হয়েছে।  যা পূর্বের থেকে কয়েক গুন বেশী।  বাল্যবিবাহ সম্পর্কে পুলিশ সুপার বলেন, যিনি বাল্যবিবাহ দেন তিনি বাবা নয়, বাবা নামের জল্লাদ। 

একটি নাবালিকা মেয়েকে বিয়ে দিলে পরবর্তীতে কি কি সমস্যা হতে পারে, সে সম্পর্কে কোন ধারণা না থাকায় মেয়েকে বিয়ে দিতে পারলেই যেন বাচেন।  যখন মেয়ের দুর্ঘটনা ঘটে তখন বোঝে কি ভুলটাই না সে করেছে।  মাদক ব্যবসায়ীদের উদ্দেশ্যে পুলিশ সুপার বলেন, অন্যের ছেলের হাতে বিষ তুলে দিয়ে নিজের ছেলেকে দুধ খাওয়াবেন, তা হবার নয়। 

সময় থাকতে ভাল হয়ে যান।  পুলিশকে কঠোর হতে বাধ্য করবেন না।  ২০১৮ সালে পুলিশ আরো হার্ড লাইনে যাচ্ছে।  মহিষখোচা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান মোসাদ্দেক হোসেন চৌধুরীর সভাপতিত্বে মতবিনিময় সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামীলীগের সিনিয়র সহ সভাপতি সিরাজুল হক। 

মহিষখোচা ইউনিয়ন পরিষদ ও উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং ইউনিটের আয়োজনে মতবিনিময় সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (এ সার্কেল) সুশান্ত সরকার, সহকারী পুলিশ সুপার রবিউল ইসলাম, আদিতমারী থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হরেশ্বর রায়, উপজেলা কমিউনিটি পুলিশিং ইউনিটের সভাপতি আবু বক্কর সিদ্দিক, মুক্তিযোদ্ধা আজিজুল ইসলাম আজি, প্যানেল চেয়ারম্যান মজমুল হক প্রমুখ। 

সভাপতির বক্তব্যে মহিষখোচা ইউপি চেয়ারম্যান মোসাদ্দেক হোসেন চৌধুরী বলেন, মাদক ব্যবসা বা সেবন কারীকে আজ থেকে সবাইকে বয়কট করা হলো।  তাদের সরকারী সকল সুযোগ সুবিধা থেকে তাদেরকে বঞ্চিত করা হবে।  এখনও সময় আছে ভাল হন নইলে বিপদ আছে।