১০:৩১ পিএম, ১৮ নভেম্বর ২০১৮, রোববার | | ৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪০




মিরসরাইয়ে আদিবাসী কিশোরীকে ধর্ষণের অভিযোগ

০৯ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:৩৫ পিএম | জাহিদ


রাজু কুমার দে, মিরসরাই : মিরসরাইয়ে এক আদিবাসী কিশোরীকে (১৩) ধর্ষণের অভিযোগ উঠেছে।  গত বৃহস্পতিবার উপজেলার খইয়াছড়া ইউনিয়নের পূর্ব মসজিদিয়া ত্রিপুরা পাড়ার উত্তর পাশের নির্জন পাহাড়ের উপরে এ ঘটনা ঘটে। 

শুক্রবার (৯ নভেম্বর) বিকালে এ ঘটনায় কিশোরীর বাবা বাদি হয়ে মিরসরাই থানায় একটি মামলা দায়ের করেছে।  ওই মামলায় শিমুল ত্রিপুরা ও মো. মন্নানকে আসামী করা হয়েছে।  পুলিশ শুক্রবার সন্ধ্যার সাড়ে ৭টায় মসজিদিয়া গহিণ পাহাড় থেকে অভিযান চালিয়ে ধর্ষক শিমুল ত্রিপুরাকে আটক করেছে। 

এ ব্যাপারে ধর্ষনের শিকার কিশোরী বলেন, বৃহস্পতিবার দৈনিক বেতনের ভিত্তিতে পাড়ার পাশের একটি পাহাড়ে আরো ৫-৭ জন শ্রমিকসহ বাগান পরিস্কারের কাজ করতে যাই। 

এসময় আমাদের কাজের পরিচালনা করছিলেন গুণধন ত্রিপুরার ছেলে শিমুল ত্রিপুরা।  সেখানে আমার দায়িত্ব ছিলো শ্রমিকদের পানি খাওয়ানো।  এক পর্যায়ে শিমুল ত্রিপুরা জ্বালানী কাঠ সংগ্রহের কথা বলে আমাকে ডেকে পাহাড়ের উপরে নিয়ে যায়।  সেখানে আগে থেকে অপেক্ষারত আবুল কাশেমের ছেলে মো. মান্নানসহ শিমুল ত্রিপুরা আমাকে মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে পালাক্রমে ধর্ষণ করে। 

পরে আমাকে ছেড়ে দেয়ার সময় তারা বলে, এ ঘটনা যেন কাউকে না বলি, যদি এ ঘটনা প্রকাশ করি তাহলে আমাকে ও আমার বাবা মাকে হত্যা করবে। 

এ বিষয়ে মিরসরাই থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) জাহিদুল কবির জানান, ধর্ষণের ঘটনায় মিরসরাই থানায় একটি মামলা দায়ের হয়েছে।  ধর্ষক শিমুল ত্রিপুরাকে আটক করা হয়েছে।  তদন্তপূর্বক আসামীদের দ্রæত আইনের আওতায় নিয়ে আসা হবে। 



keya