১২:২৫ এএম, ১৬ ডিসেম্বর ২০১৮, রোববার | | ৭ রবিউস সানি ১৪৪০




যদি জিততে পারি, মোড় ঘুরে যেতে পারে : মাশরাফি

০৩ জানুয়ারী ২০১৮, ০৯:৪৭ এএম | জাহিদ


এসএনএন২৪.কম : শ্রীলঙ্কা ও জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ত্রিদেশীয় সিরিজ দিয়ে শুরু হচ্ছে মাশরাফিদের নতুন বছরের যাত্রা।  কোচ ছাড়াই তাদের বিপক্ষে খেলবে টাইগাররা।  এদিকে আসন্ন সিরিজকে সামনে রেখে কঠোর অনুশীলন করছেন ক্রিকেটাররা।  ছুটি কাটিয়ে মঙ্গলবার অনুশীলনে যোগ দিয়েছেন অধিনায়ক মাশরাফি বিন মর্তুজা।  দলনেতা ফেরায় টাইগারদের অনুশীলনে যোগ হয়েছে বাড়তি মাত্রা। 

মাশরাফি অধিনায়কের পাশাপাশি কোচের দায়িত্বও পালন করবেন! একদিন আগেই বিষয়টি পরিষ্কার করেছেন বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন।  তিনি জানিয়েছেন, নতুন কোচ নিয়োগ না দেওয়া পর্যন্ত মাশরাফি ও সাকিব কোচের ভূমিকা পালন করবেন।  তবে মাশরাফি মনে করেন না তিনি কোচ।  প্রধান কোচ না থাকায় সিরিয়ন ক্রিকেটারদের দায়িত্ব অনেক—এটাই বুঝিয়েছেন সভাপতি। 

এ সম্পর্কে নড়াইল এক্সপ্রেস বলেন, ‘আমার মনে হয় না, আলাদা কিছু করতে হবে।  উনি যেটা বুঝিয়েছেন, সেটা হলো সিনিয়র খেলোয়াড়দের দায়িত্বের বিষয়টা।  যেটা সব সময়ই থাকে।  আলাদা কিছু করতে গেলে আরও সমস্যার উদ্ভব হতে পারে।  আমার কাছে মনে হয় যেভাবে চলছিল, সেটাই ঠিক আছে। 

কিছুদিন আগেই রংপুর রাইডার্সকে বিপিএলের শিরোপা জিতিয়ে দিয়েছেন মাশরাফি।  সেই আত্মবিশ্বাস জাতীয় দলেও ভালো খেলতে সহযোগিতা করবে।  তা ছাড়া শ্রীলঙ্কা ও জিম্বাবুয়ের বিরুদ্ধে নিজেদেরই ফেবারিট মনে করছেন মাশরাফি, এই সিরিজে অবশ্যই জেতার পরিকল্পনা থাকবে।  ত্রিদেশীয় সিরিজটি খুবই গুরুত্বপূর্ণ। 

দক্ষিণ আফ্রিকা থেকে ফেরার পর সবাই হতাশ।  আমরা যদি এটা জিততে পারি, তাহলে পরিস্থিতির মোড় ঘুরে যেতে পারে।  আমার মনে হয় না কঠিন কিছু হবে।  বিশেষ করে ওয়ানডেতে।  একটা সিরিজ দিয়ে সব কিছু বিবেচনা করা যায় না।  আমাদের মূল কাজ হবে ঠিকঠাক কাজগুলো করা।  দেশে ও বাইরের সিরিজের মধ্যে আকাশপাতাল ব্যবধান থাকে।  ঘরের মাঠের সিরিজ আমরা জিততে চাই। 

শ্রীলঙ্কার বিরুদ্ধে সব শেষ ওয়ানডে সিরিজ ১-১ সমতায় শেষ হয়েছিল।  সেটা ছিল লঙ্কানদের মাটিতে।  বাংলাদেশের মাটিতে তাই নিজেদেরই এগিয়ে রাখলেন মাশরাফি।  তবে বাংলাদেশের ভয় অন্য জায়গায়, এই সিরিজে লঙ্কান দলের কোচ চন্ডিকা হাতুরাসিংহে।  কিছুদিন আগেও যিনি বাংলাদেশ দলের প্রধান কোচ ছিলেন।  টাইগারদের হাঁড়ির খবর তার জানা।  তবে এটা ঠিক যে মাঠে পারফর্ম করতে পারলে লঙ্কানদের কোনো পরিকল্পনাই কাজে আসবে না।  আর জিম্বাবুয়েকে তো এখন বাংলাদেশ বলে-কয়ে হারিয়ে দেয়।  তারপরেও সতর্ক মাশরাফি। 

ক্রিকেটে অনেক সময় পূর্বের সিরিজ খেলোয়াড়দের আত্মবিশ্বাসী করে তোলে।  কিন্তু সব শেষ সিরিজে বাংলাদেশ দক্ষিণ আফ্রিকায় গিয়ে যাচ্ছেতাই পারফর্ম করেছে।  তবে ত্রিদেশীয় সিরিজের আগে সে বিষয়টি মাথায় রাখতে চান না মাশরাফি, ‘দক্ষিণ আফ্রিকা সফর আমাদের ভালো যায়নি।  কিন্তু বাজে সময় আসতেই পারে।  এখন আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ সেটা মাথায় না রেখে খেলা। 



keya