৯:৪২ এএম, ২৩ নভেম্বর ২০১৭, বৃহস্পতিবার | | ৪ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

যে কারণে আজই চাকরি ছাড়া উচিত

১৫ নভেম্বর ২০১৭, ০২:৩৯ এএম | সাদি


এসএনএন২৪.কম : অফিসের কিছু লক্ষণই বলে দেবে আপনার বর্তমান চাকরিটা আজই ছাড়া উচিত কি না।  যদি এসব লক্ষণ দেখে থাকেন তাহলে সিদ্ধান্ত নিন আজই।  যেমন, যখন আপনি বসকে কয়েকবার প্রমাণ দিবেন যে আপনি আরও দায়িত্ব পালনের যোগ্য, অথচ আপনার বস আপনার দক্ষতার মূল্যায়ন করছে না।  বরং আপনাকে এমন জায়গায় বসিয়ে রাখেন, যেখানে আপনার দক্ষতাকে কাজে লাগানো সম্ভব নয়।  এই ঘটনায় এখনই আপনার নিজের ভালোর জন্য অন্য সুযোগ খোঁজা উচিত। 

আপনি যা করছেন, তা যদি আপনি ভালোবাসেন তবে এটি আপনার জন্য আরামদায়কও হতে পারে।  সকল কাজই আপনার দক্ষতাকে বৃদ্ধি করে এবং চাকরিজীবী হিসেবে আপনার মূল্যকে বৃদ্ধি করে।  কিন্তু আপনি যদি আপনার কাজ থেকে কিছুই শিখতে না পারেন এবং প্রতিনিয়ত একই কাজ করে যান অর্থাৎ আপনার যদি কোনো উন্নতি না হয় তবে এখনই আপনার অন্য কোথাও চাকরি দেখা প্রয়োজন। 

অতিব্যয়ী না হওয়া সত্ত্বেও যদি আপনি টাকা নিয়ে উদ্বিগ্ন থাকেন তবে আপনাকে বুঝতে হবে যথেষ্ট পরিমাণ বেতন পাচ্ছেন না।  প্রতিষ্ঠানের পরিচালকদের মূল্যায়নের কথা বলুন।  যদি প্রতিষ্ঠান বেতন বাড়ানোর বিষয়টি নাকচ করে, তবে আপনার এমন প্রতিষ্ঠান খোঁজা উচিত যেখানে আপনার মধ্যে বেতন কম পাওয়ার মনোভাবটি কাজ করবে না। 

আপনি যে প্রতিষ্ঠানে কাজ করছেন সেখানে ১২ মাস পর আপনার অবস্থান চিন্তা করুন।  আপনার অবস্থান যদি আপনাকে উৎসাহিত না করে তবে আপনার চাকরি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত। 

কর্মক্ষেত্রে আপনাকে সবসময় আনন্দ এবং চ্যালেঞ্জিং মনোভাব অনুভব করতে হবে।  আপনার মনোভাব যদি এমন হয় যে আপনি এখান থেকে কিছুই পাচ্ছেন না, তবে এখনই চাকরি ছাড়ার সিদ্ধান্ত নেওয়া উচিত। 

প্রতিষ্ঠানে কর্মরত কর্মীরা কাজের ক্ষেত্রে উৎসাহী, ক্রিয়েটিভ এবং মানসিকভাবে প্রতিষ্ঠানের সঙ্গে যুক্ত হয়ে প্রতিষ্ঠানের উদ্দেশ্য বাস্তবায়নে কাজ করে।  কিন্তু প্রতিষ্ঠান যদি কর্মীদের সংশ্লিষ্টতার কোনো মূল্যায়ন না করে কিংবা আপনার বিপদে পাশে না দাঁড়ায়, তবে সে চাকরি আপনার ছেড়ে দেওয়াটাই ভালো। 

আপনার এবং চাকরিদাতার উদ্দেশ্য যদি এক না হয়, তবে এখনই আপনার চাকরি ছাড়া উচিত।