৪:৪৩ পিএম, ১৭ নভেম্বর ২০১৯, রোববার | | ১৯ রবিউল আউয়াল ১৪৪১




রংপুর রাইডার্স মাশরাফি-সাকিব দুজনকেই চায়

২১ আগস্ট ২০১৯, ১০:০০ এএম | নকিব


এসএনএন২৪.কম : বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল) শুরু হতে বাকি মাত্র তিন মাস। 

কিন্তু বিপিএল শুরুর আগে নতুন করে ফ্রাঞ্চাইজিগুলোর সঙ্গে আলোচনায় বসেছে বিপিএল গভর্নিং বডি। 

সেই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার (২০ আগস্ট) রংপুর রাইডার্সের সঙ্গেও আলোচনায় বসেছিল বিপিএল কর্তৃপক্ষ।  আলোচনা শেষে রংপুর রাইডার্সের সিইও (প্রধান নির্বাহী) ইশতিয়াক সাদেক জানালেন, বিপিএলের পরবর্তী আসরে মাশরাফি-সাকিব দুজনেই রংপুরের হয়ে খেলবেন। 

আলোচনায় আগ্রহের কেন্দ্রবিন্দুতে ছিলেন সাকিব আল হাসান।  ঢাকা ডায়নামাইটস থেকে বেশ ঘটা করেই রংপুর রাইডার্সের সাথে চুক্তিবদ্ধ হন বিশ্বসেরা এই অলরাউন্ডার।  মূলত এরপরই নড়েচড়ে বসে বিপিএল কর্তৃপক্ষ।  দেখা দেয় নতুন জটিলতা।  বিপিএল গভর্নিং বডি জানিয়ে দেয়, ফ্রাঞ্চাইজিগুলোকে নতুন করে চুক্তি করে নতুন ভাবে দল গঠন করতে হবে। 

আলোচনা শেষে রংপুর রাইডার্সের প্রধান নির্বাহী ইশতিয়াক সাদেক জানিয়েছেন এবারে বিপিএলেও অংশ নেবে রংপুর।  তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় এখানে সাকিব কোনো বড় ইস্যু না।  যেহেতু ফ্র্যাঞ্চাইজি পেমেন্ট শেষ হয়ে গিয়েছিল, সে কারণে তারা জানতে চাইল আমরা কী পরবর্তী চার বছরের জন্য রাজী কিনা।  নিঃসন্দেহে বসুন্ধরা গ্রুপ রংপুর রাইডার্স হিসেবে থাকতে চায়। 

এরপরও ওনারা কিছু নতুন নিয়ম-কানুন চেঞ্জ করবে।  নতুন নিয়মগুলো কীভাবে করতে চায়, কীভাবে করলে ভালো হবে জানতে চাইল।  আমরা মোটামুটি সব ব্যাপারেই একমত হয়েছি।  আমরা কিছু সাজেশন দিয়েছি, বলেছি লিখিতভাবে জানিয়ে দেবো। ’

রংপুর রাইডার্সের পক্ষ থেকে কিছু দাবি-দেওয়া কিংবা পরামর্শ দেওয়া হয়েছে।  সে সম্পর্কে প্রধান নির্বাহী বলেন, ‘আমাদের সাজেশন ছিল যেহেতু একটা টিম দুই বছর ধরে একভাবে খেলে আসছে, পরবর্তী চার বছর খেলার জন্য টিমের একটা কোড দরকার। 

টিমের কিছু খেলোয়াড় রিটেইন করার ব্যাপার আছে।  সে রিটেনশন চেয়েছি আমরা।  গত বছরের নিয়ম অনুসারে কিছু ফ্রেশ সাইনিং ছিল বোর্ড সেটা নিতে চাচ্ছে।  আইকন প্লেয়ার বলে কিছু নাকি থাকবে না।  একজন লোকাল ডাইরেক্ট সাইনিং, যেটা আমরা ম্যানডেটরি চেয়েছি।  বোর্ড বলছে ফরেন ডাইরেক্ট সাইনিং দুজন অথবা তিনজন করবে।  আমরা বললাম যেহেতু বিদেশিরদের জন্য করবে, তাহলে কেন লোকাল ডাইরেক্ট সাইনিং নয়?’

এক্ষেত্রে লোকাল ক্রিকেটার চুক্তি বিষয়ে রংপুর রাইডার্স সাকিবকে চেয়েছে কিনা এমন প্রশ্নে ইশতিয়াক সাদেক বলেছেন, ‘আমরা নাম উল্লেখ করে কিছু বলিনি।  তবে যেহেতু রংপুর রাইডার্স সাকিবের সঙ্গে সাইন করেছে তার দিকে তো অবশ্যই যাবে। ’

রংপুর রাইডার্সের অধিনায়ক মাশরাফিকেও দলে রাখতে চায় রংপুর।  সেক্ষেত্রে এবার যদি আইকন ক্রিকেটারের অপশন না থাকে তবে রিটেনশন হিসেবেও মাশরাফিকে দলে রাখতে চায় দলটি।  মাশরাফি প্রসঙ্গে ইশতিয়াক সাদেক বলেন, ‘মাশরাফি তো আমাদের ঘরের ছেলে।  আমাদের যে চিন্তা ছিল তাতে রিটেনশনে মাশরাফিও পড়ে যায়।  মাশরাফি-সাকিব দুজনেই রংপুরে খেলবে।  কিন্তু বোর্ড এখানে যদি নতুন নিয়ম আবার এনে দেয়, সেখানে কিছু করার নেই। ’

সকল ফ্রাঞ্চাইজিদের সঙ্গে আলোচনা শেষেই বিপিএলে নতুন নিয়ম- কানুন তৈরি করবে বলে জানিয়েছে বিপিএল গভর্নিং বডি।