২:২৬ এএম, ২০ জুন ২০১৮, বুধবার | | ৬ শাওয়াল ১৪৩৯

South Asian College

রাস্তায় যা হয়েছে তা দলের বিষয় নয়: কাদের

০৮ মার্চ ২০১৮, ০৮:০৮ পিএম | সাদি


এসএনএন২৪.কম :  বুধবার সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের আশেপাশে বিভিন্ন সড়কে মেয়েদের হয়রানির ঘটনায় আওয়ামী লীগের দায় নেই বলে দাবি করেছেন ওবায়দুল কাদের। 

ক্ষমতাসীন দলের সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘সমাবেশস্থলে? সমাবেশস্থলে হয়েছে? সমাবেশের বাইরে ঢাকার রাস্তায় কোথায় কী হয়েছে, এটা আমাদের দলের বিষয় নয়। ’

তবে এই ঘটনায় কেউ ছাড় পাবে না-এটাও জানান কাদের।  বলেন, ‘এটাতে অবশ্যই সরকারের দায় আছে।  কোথাও যদি কিছু ঘটে থাকে, স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেছেন খতিয়ে দেখছেন, ব্যবস্থা নেয়া হবে। ’

বৃহস্পতিবার বিকালে ধানমন্ডিতে আওয়ামী লীগের নির্বাচনী কার্যালয়ে দপ্তর উপ-কমিটির সভা শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলছিলেন ওবায়দুল কাদের। 

আওয়ামী লীগ নেতা বলেন, ‘অবশ্যই যেই এসব ঘটনা ঘটাক, কেউ ছাড় পাবে না।  ৭ মার্চ সমাবেশস্থল সোহরাওয়ার্দী উদ্যানের বাইরে যদি কোনো ঘটনা ঘটে থাকে, তাহলে কেউই ছাড় পাবে না। ’

১৯৭১ সালের ৭ মার্চ সোহরাওয়ারর্দী উদ্যানে বঙ্গবন্ধুর ঐতিহাসিক ভাষণের স্মরণে বুধবার একই ময়দানে জনসভা করে আওয়ামী লীগ।  আর এজন্য আশপাশের বিভিন্ন সড়কে যান চালাচল নিয়ন্ত্রিত ছিল।  এ কারণে হেঁটে চলতে বাধ্য হয়েছে মানুষ।  আর চলার পথে জনসভায় আসা নেতা-কর্মীদের হাতে বেশ কয়েকজন নারী হয়রানির শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ উঠেছে। 

এদের মধ্যে ভিকারুননিসার ছাত্রী অদিতি বৈরাগী ফেসবুকে তার অভিজ্ঞতা বর্ণনা করার সঙ্গে সঙ্গে তা ছড়িয়ে যায়।  অদিতি জানান, বাংলামোটর এলাকায় সোহরাওয়ার্দীর সমাবেশে যাওয়া একটি মিছিল থেকে তাকে হয়রানি করা হয়েছে।  তাকে থাপ্পরও দেয়া হয়েছে।  এই ঘটনায় মানসিকভাবে ভয়াবহ বিপর্যস্ত জানিয়ে অদিতি এমনও লিখেন ‘আমি এই শুয়রদের দেশে থাকব না। ’

অদিতি ছাড়াও ইশরাতুল শোভা, আফরিন আসাদ মেঘলাসহ আরও বেশ কয়েকজন তরুণীও ফেসবুকে একই ধরনের অভিজ্ঞতার কথা লিখেছেন।  এ নিয়ে বুধবার থেকেই তোলপাড় চলছে সামাজিক মাধ্যমে। 

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল এরই মধ্যে জড়িতদের বিরুদ্ধে কঠোর ব্যবস্থা নেয়ার ঘোষণা করেছেন।  বিশেষভাবে জানিয়েছেন, অদিতিকে হয়রানির ঘটনার ভিডিও পেয়েছেন তারা।  যারা এই কিশোরীকে হয়রানি করেছে, তাদের সবাইকে শাস্তির আওতায় আনা হবে। 

অদিতির সঙ্গে দেখা করে তার জবানবন্দীও নেয়া হয়েছে বলে জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। 

কেবল এই ঘটনা নয়, যেসব এলাকায় হয়রানির ঘটনা ঘটেছে, তার সবগুলোতেই সিসি ক্যামেরা রয়েছে।  ফলে ফুটেজ পেলে সবাইকে শনাক্ত করা সম্ভব বলে সামাজিক মাধ্যমে যুক্তি দেয়া হচ্ছে। 

ওবায়দুল কাদেরও বলেন, ‘আমরা বিগত দিনে এ ধরনের ঘটনায় কাউকে ছাড় দেইনি।  বুধবারের ঘটনাতেও কাউকে ছাড় দেয়া হবে না। ’

আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য ও দপ্তর উপকমিটির চেয়ারম্যান আলাউদ্দিন আহমেদের সভাপতিত্বে সভায় আরও উপস্থিত ছিলেন উপকমিটির সদস্য সচিব দলের দপ্তর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ, উপদপ্তর সম্পাদক বিপ্লব বড়ুয়াসহ কমিটির সদস্যরা।