৯:২২ এএম, ১৫ নভেম্বর ২০১৯, শুক্রবার | | ১৭ রবিউল আউয়াল ১৪৪১




লেস্টার সিটির ৯ গোলের জয়ের ম্যাচে ৮ রেকর্ড

২৭ অক্টোবর ২০১৯, ১০:৪৬ এএম | নকিব


এসএনএন২৪.কম: ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ম্যাচে শুক্রবার রাতে সাউদাম্পটকে গোলের বন্যায় ভাসায় লেস্টার সিটি। 

সাউদাম্পটেরই মাঠ সেন্ট ম্যারি স্টেডিয়ামে জেমি ভার্ডি ও আয়োজে পেরেজের হ্যাটট্রিকে ৯-০ গোলে জয় পায় ২০১৫-১৬ সালের চ্যাম্পিয়নরা। 

এ ম্যাচ শেষে ৮টি রেকর্ড হয়েছে।  নিচে রেকর্ডগুলো দেওয়া হলো:

১. ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগের ইতিহাসে অ্যাওয়ে ম্যাচে সবচেয়ে বড় জয় পেল লেস্টার।  এর আগের রেকর্ডগুলো ছিল, উলভারহ্যাম্পটনের মাঠে ওয়েস্ট ব্রমউইচ (৮-০, ১৮৯৩), নিউক্যাসেল ইউনাইটেডের মাঠে সান্ডারল্যান্ড (৯-১, ১৯০৮), কার্ডিফ সিটির মাঠে উলভারহ্যাম্পটন (৯-১, ১৯৫৫)। 

২. সাউদাম্পটনের ১৩৩ বছরের ফুটবল ইতিহাসে সবচেয়ে বড় হার।  এর আগে দলটি ১৯৯৯ সালে লিভারপুলের কাছে ৭-১ গোলে হেরেছিল। 

৩. এটা ইংলিশ প্রিমিয়ার লিগ ইতিহাসে সবচেয়ে বড় জয়ও।  তবে এক্ষেত্রে তাদের ম্যানচেস্টার সিটির রেকর্ডে ভাগ বসাতে হয়েছে।  ১৯৯৫ সালে ম্যানসিটি আইপিসুইচ টাউনের বিপক্ষে সমান ৯-০ গোলে জয় পেয়েছিল। 

৪. প্রিমিয়ার লিগের ইতিহাসে মাত্র দ্বিতীয়বার একই দলের দুই ফুটবলার হ্যাটট্রিকের দেখা পেলেন।  ভার্ডি ও পেরেজের আগে ২০০৩ সালে আর্সেনালের জার্মেইন পিনাট ও রবার্ট পিরেস সাউদাম্পটনের বিপক্ষে এমন কীর্তি গড়েছিলেন। 

৫. লেস্টার দ্বিতীয় দল হিসেবে প্রিমিয়ার লিগে প্রথমার্ধে ৫-০ গোলে লিড পায়।  এর আগে ২০১০ সালে বার্নলির বিপক্ষে ম্যানচেস্টার সিটি ৫ গোলে এগিয়ে ছিল।  সে ম্যাচে সিটিজেনরা ৬-১ গোলে জয় পায়। 

৬. গত ট্রান্সফার উন্ডোতে নিউক্যাসেল ইউনাইটেড থেকে ৩৭.৩ মিলিয়ন ইউরোতে লেস্টার আসার পর এ ম্যাচেই প্রথম গোলের দেখা পেলেন পেরেজ।  করেলন হ্যাটট্রিকও।  এর আগে ১০ ম্যাচ খেলে কোনো গোলের দেখা পাননি তিনি। 

৭. লেস্টারের হয়ে শেষ ২১ ম্যাচ খেলে ১৯টি গোল করলেন ভার্ডি। 

৮. লেস্টারের ফুলব্যাক বেন চিলওয়েল তার ক্যারিয়ারের ১০৬ ম্যাচে দ্বিতীয় গোলের দেখা পেলেন।  তার আগের গোলটি এসেছিল ২০১৭ সালে টটেনহ্যামের বিপক্ষে ৬-১ গোলে হারের ম্যাচে।