২:২৬ এএম, ২৪ নভেম্বর ২০১৭, শুক্রবার | | ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী কে কটুক্তির প্রতিবাদ করায়

লোহাগড়া ছাত্রলীগ নেতার উপর হামলার প্রতিবাদে সমাবেশ অনুষ্ঠিত

১৩ সেপ্টেম্বর ২০১৭, ০৫:৪৫ পিএম | সাদি


শরিফুল ইসলাম, নড়াইল প্রতিনিধি : বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী সম্পর্কে কটুক্তির প্রতিবাদ করায় সৈয়দ ফয়সাল কবির নামে একজন ছাত্রলীগ নেতাকে মারপিট করেছে কটুক্তিকারী ও তার সহযোগিরা।  ঘটনাটি ঘটেছে নড়াইলের লোহাগড়া উপজেলার নোয়াগ্রাম ইউপির কাউলীডাঙ্গা গ্রামে।  ওই ছাত্রলীগ নেতাকে মারপিটের প্রতিবাদে মঙ্গলবার ও  বুধবার প্রতিবাদ সমাবেশ করেছে ছাত্রলীগের নেতাকর্মীরা। 

সংশ্লিষ্ট সূত্রে ও অভিযোগে জানা গেছে, গত ৩ সেপ্টেম্বর রাতে নোয়াগ্রাম ইউনিয়ন পরিষদ সংলগ্ন মিলনের চায়ের দোকানে কথিত বিএনপি নেতা ওই গ্রামের জমির শেখের ছেলে এলাকায় মাদক ব্যাবসায়ি হিসাবে অভিযুক্ত বুলবুল শেখ বুলু বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী কে নিয়ে কটুক্তি করেন।  এরই প্রতিবাদে লোহাগড়া উপজেলা পরিষদ হল রুমে লোহাগড়া উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ ফয়জুল আমির লিটু গত শুক্রবার সকালে দোষিদের গ্রেফতার ও দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে প্রতিবাদ সভা করেন  এবং শহরে বিক্ষোভ মিছিল বের করেন। 

লোহাগড়া পৌর মেয়র যুবলীগ সভাপতি মোঃ আশরাফুল আলম, জয়পুর ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ আকতার হোসেন, লাহুড়িয়া ইউপি চেয়ারম্যান মোঃ দাউদ হোসেনসহ আওয়ামীলীগ, ছাত্রলীগ, যুবলীগ নেতাকর্মীরা এসময় উপস্থিত ছিলেন।  প্রতিবাদ করার কারনে গত শুক্রবার দুপুরে ক্ষিপ্ত হয়ে বুলবুল শেখ বুলু, রকি, সেলিম, নওশের, মিজান, লাবলু, মুস্তাহিদ, শোয়েব, সোহান, রাজুসহ ২০/২৫ জনে দেশীয় অস্ত্র নিয়ে প্রতিবাদকারী উপজেলা চেয়ারম্যানের ভাতিজা ছাত্রলীগ নেতা সৈয়দ ফয়সাল কবিরকে বেদম মারপিট করে।  পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে লোহাগড়া হাসপাতালে ভর্তি করে।  মারপিটের ঘটনায় থানায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। 

তবে, বঙ্গবন্ধু ও প্রধানমন্ত্রী কে নিয়ে কটুক্তি করার ঘটনায় লোহাগড়া থানায় মামলা দায়ের করেছেন যুবলীগ নেতা সৈয়দ মাসুম রেজা।   মারপিটের করেও ক্ষান্ত হয়নি সন্ত্রাসীরা।  ওই সন্ত্রাসীরা ছাত্রলীগ নেতা সৈয়দ ফয়সাল কবিরকে নিয়ে নানা অপপ্রচার চালাচ্ছে বলেও অভিযোগ।  জয়পুরস্থ আওয়ামীলীগ অফিসে প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তব্য রাখেন জেলা ছাত্রলীগ নেতা মোঃ রুবেল হোসেন মোল্যা, ছাত্রলীগ নেতা ফয়সাল কবির ইমরান,রোমান রায়হান, খন্দকার আশরাফুল ইসলাম,মোঃ সুজন খন্দকার, মোঃ ইভান পারভেজ, মোঃ সালাউদ্দিন, মোঃ মারুফ হোসেন,হাসিব খান প্রমুখ।  নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে দোষিদের গ্রেফতারের দাবি জানান।