৮:৩৭ এএম, ৮ আগস্ট ২০২০, শনিবার | | ১৮ জ্বিলহজ্জ ১৪৪১




শিরোপার সুবাস পাচ্ছে রিয়াল মাদ্রিদ

১১ জুলাই ২০২০, ১০:৩২ এএম | নকিব


এসএনএন২৪.কমঃ করিম বেনজেমার অসাধারণ পারফরম্যান্সে ভর করে আলাভেসকে ২-০ গোলে হারিয়েছে রিয়াল মাদ্রিদ।  এই জয়ে ২০১৬/১৭ মৌসুমের পর আবারও লা লিগার শিরোপা জয়ের দ্বারপ্রান্তে পৌঁছে গেছে লস ব্ল্যাঙ্কোসরা

শুক্রবার (১০ জুলাই) রাতে স্তাদিও আলফ্রেদো দি স্তেফানোয় পাওয়া এই জয়ে আরও একবার দ্বিতীয় স্থানে থাকা বার্সেলোনার চেয়ে ৪ পয়েন্টে এগিয়ে গেল শীর্ষে থাকা রিয়াল।  এই নিয়ে করোনাকালে স্থগিত থাকা লা লিগা ফের শুরুর পর এখন পর্যন্ত ৮ ম্যাচের সবগুলোই জিতেছে জিনেদিন জিদানের শিষ্যরা। 

রিয়ালের জয়ে মূল অবদান করিম বেনজেমার।  চলতি মৌসুমে দুর্দান্ত ফর্মে থাকা এই ফরাসি স্ট্রাইকারের পেনাল্টি গোলেই এগিয়ে যায় রিয়াল।  এরপর রিয়ালের দ্বিতীয় গোলে আসে অ্যাসেনসিওর পা থেকে।  তবে এই গোলেও অ্যাসিস্ট বেনজেমার। 

এ রাতে একাদশ সাজানো নিয়ে বেশ ঝক্কি পোহাতে হয়েছে জিদানকে।  মৌসুমের শেষদিকে এসে ইনজুরিতে পড়া মার্সেলোর জায়গায় নেমেছিলেন ফেরলান্ড মেন্দি।  অন্যদিকে এক ম্যাচ নিষেধাজ্ঞায় থাকা দানি কারবাহাল এবং সার্জিও রামোসের জায়গায় সেন্টার-ব্যাক পজিশনে আসেন এদের মিলিতাও এবং রাফায়েল ভারানে।  রাইট-ব্যাকে অনেকদিন পর সুযোগ পেয়ে যাম লুকাস ভাসকেস।  আক্রমণভাগে বেনজেমার সঙ্গে নামেন অ্যাসেনসিও এবং রদ্রিগো। 

খেলার শুরুতেই অবশ্য এগিয়ে যেতে পারত আলাভেস।  কিন্তু হোসেলোর হেড ক্রসবারে লাগে এবং এরপর লুকাস পেরেসের হেড গোললাইন থেকে ফেরান ভারানে।  উল্টো ১১তম মিনিটে মেন্দিকে নিজেদের ডি-বক্সে ফাউল করে রিয়ালকে পেনাল্টি উপহার দেন আলাভেসের জিমো নাভারো।  রামোস না থাকায় পেনাল্টি কিক নেন বেনজেমা।  আর দুর্দান্ত এক শটে লক্ষ্যভেদ করে স্কোর ১-০ করেন এই ফরাসি। 

প্রথমার্ধের মাঝামাঝি ইনজুরিতে পড়েন রেফারি গিল মানহানো।  ফলে রাফারি বদলের মতো বিরল ঘটনার সাক্ষী হয় এই ম্যাচ।  চতুর্থ রাফারি রদ্রিগেজ কারপায়ো বাকি ৪৫ মিনিটের দায়িত্ব সামলান। 

দ্বিতীয়ার্ধে ফের বিতর্ক ছড়ায় ভিডিও অ্যাসিস্ট্যান্ট রেফারি (ভিএআর)।  বেনজেমার পাসে লক্ষ্যভেদ করেছিলেন অ্যাসেনসিও।  শুরুতে অফসাইডের কারণ দেখিয়ে বাতিল করা হয় এই গোল।  তবে রিপ্লেতে দেখা যায় রদ্রিগোর পাস গ্রহণের সময় অন সাইডেই ছিলেন বেনজেমা।  ফলে সিদ্ধান্ত বদলে গোলের বাঁশি বাজান রেফারি। 

২-০ গোলে এগিয়ে যাওয়া রিয়াল পরবর্তীতে আলাভেসকে নিয়ে রীতিমত ছেলেখেলা করে।  তবে শেষ পর্যন্ত বেনজেমা ও অ্যাসেনসিওর গোলই ম্যাচের নির্ধারক হয়ে দাঁড়ায়।