৮:৫৫ এএম, ১৯ অক্টোবর ২০১৮, শুক্রবার | | ৮ সফর ১৪৪০


সুন্দরগঞ্জে কনকনে শীতে কাতরাচ্ছে মানুষ

১০ জানুয়ারী ২০১৮, ০৮:৪১ পিএম | সাদি


রেজাউল ইসলাম, সুন্দরগঞ্জ (গাইবান্ধা) প্রতিনিধি :  গাইবান্ধার সুন্দরগঞ্জ উপজেলায় একটানা হিমেল হাওয়া, কনকনে ঠান্ডা ও শৈত্য প্রবাহ অব্যাহত থাকায় শীতে কাতরাচ্ছে মানুষ।  শীত জনিত রোগে আক্রান্ত হচ্ছে শিশু, বৃদ্ধ-বৃদ্ধা ও প্রসূতি মায়েরা।  গত আট দিন থেকে শীত জনিত রোগে আক্রান্ত হয়ে প্রতিদিন ৭/৮ জন করে রোগী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি হচ্ছে। 

অনেকে স্থানীয় কমিউনিটি ক্লিনিকসহ পল্লী চিকিৎসকদের নিকট চিকিৎসা নিচ্ছেন।  আক্রান্তরা হলো- তেয়ানি গ্রামের আরাফাত, মনিরাম গ্রামের দিশায়েন, রামডাকুয়া গ্রামের হাফিজা ও মেগলা, মধ্য শিবরামের বুলবুলি, চাচীয়ার জাহিদা ও পশ্চিম বেলকা গ্রামের ফজল উদ্দিন, দক্ষিণ ধোপাডাঙ্গা গ্রামের রূপজান বেওয়া, আবুল হোসেন, রহিম উদ্দিন, কছর আলী, উত্তর রাজীবপুর গ্রামের সমেস উদ্দিন বাবু, ঈসমাইল হোসেন, তোফাজ্জল, আনিছুর রহমান গোলজারী। 

এছাড়া চরাঞ্চলে এ রোগের প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ায় অনেকেই চিকিৎসা ও গরম কাপড়ের অভাবে কাহিল হয়ে পড়েছে।  উপজেলা স্বাস্থ্য ও পঃপঃ কর্মকর্তা ডা. ইয়াকুব আলী মোড়ল জানান, শীত জনিত রোগ থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার জন্য গরম পানি ও গরম কাপড় ব্যবহারের পরামর্শ দেয়া হচ্ছে। 

এদিকে খেটে খাওয়া নিন্ম আয়ের মানুষেররা কর্মহীন হয়ে পড়ায় অভাব-অনটনের মধ্যে শীতে জড়সড়ো হয়ে মানবেতর জীবন যাপন করছেন।  এছাড়া সূর্য অস্ত যাওয়ার সাথে সাথেই রাস্তা-ঘাট, হাট-বাজার গুলো জনশূণ্য হয়ে পড়ছে।  শীতের দুরাবস্থা থেকে রেহাই পেতে ফুটপাতের পুরাতন গরম কাপড়ের দোকান গুলোতে ভীড় করছে নিন্ম আয়ের মানুষেরা।  এ ব্যাপারে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা নুরুন্নবী সরকারের সাথে কথা হলে তিনি জানান, এ পর্যন্ত আট হাজার কম্বল বিতরণ করা হয়েছে।  যা প্রয়োজনের তুলনায় অপ্রতুল।