১০:০৫ পিএম, ২১ আগস্ট ২০১৮, মঙ্গলবার | | ৯ জ্বিলহজ্জ ১৪৩৯


হাথুরুসিংহের পদত্যাগে বিস্মিত মুশফিকও

১৩ নভেম্বর ২০১৭, ০৭:২৯ এএম | নকিব


এসএনএন২৪.কম : রধান কোচের পদ থেকে ইস্তফা দিতে পদত্যাগপত্র জমা দিয়েছেন চন্ডিকা হাথুরুসিংহে। 

তার পদত্যাগপত্রের খবরে অনেকের মতো বিস্মিত হয়েছে টেস্ট অধিনায়ক মুশফিকুর রহিমও।  বিস্মিত হলেও অবলীলায় বলেছেন,- ‘আল্লাহ যা করবেন, ভালোর জন্যই করবেন। 

হাথুরুসিংহের আড়াই বছরের কোচিং ক্যারিয়ারে কখনও শিরোনামে এসেছেন দলে একক রাজত্বের কারণে, আবার কখনও দল নির্বাচন নিয়ে।  অনেকের মতে, নিজের মতো করেই একাদশ ও দল নির্বাচন করেন তিনি।  অনেক সময় তার কাছে পাত্তা পান না অধিনায়কও।  সম্প্রতি বিসিবির কাছে পদত্যাগপত্র জমা দিয়ে ফের খবরের শিরোনাম হয়েছেন হাথুরুসিংহে। 

অবশ্য বাংলাদেশের সফল কোচের নাম এলে হাথুরুসিংহের নামটি নিশ্চিতভাবেই আসবে।  ২০১৪ সালে বাংলাদেশ দল যখন জয়ের খোঁজে রীতিমতো খাবি খাচ্ছিলো।  তখনই কোচের দায়িত্ব নেন হাথুরুসিংহে।  সাকিব-তামিম-মুশফিক-মাশরাফি-মাহমুদউল্লাহর মতো অভিজ্ঞ ক্রিকেটারদের নিয়ে ভালো ফল পেতে খুব বেশি সময় নেননি হাথুরুসিংহে।  কিন্তু ২০১৫ সাল থেকেই মুশফিক-হাথুরুসিংহে দ্বন্দ্ব শুরু হয়।  সম্প্রতি দক্ষিণ আফ্রিকা সফরে গিয়ে বিষয়টি প্রকাশ পায়।  এই সফরে মুশফিক সরাসরি সংবাদ মাধ্যমের কাছে নানা সময়ে বক্তব্যের মাধ্যমে হাথুরুসিংহে ও তার মধ্যকার দ্বন্দ্বের বিষয়টি সামনে নিয়ে আসেন।  অধিনায়ক হিসেবে দলে তার দায়িত্বটুকু পালন করার সুযোগ যে সীমিত সেটাই প্রকাশ করেন মুশফিক। 

অন্য সব সিনিয়র ক্রিকেটার হাথুরুসিংহের বিষয়ে মুখ বন্ধ রাখলেও মুশফিক সরাসরিই জানালেন অনেক কথা, ‘সিদ্ধান্ত কী হয়েছে, এখনও বলতে পারছি না।  আর সবার মতো আমিও বিস্মিত! কারণ শেষ সফরেও আমরা একসঙ্গে ছিলাম, এক সঙ্গে কাজ করেছি।  জানি না কী কারণে হয়েছে।  তবে সেটার দায়িত্বে বিসিবি আছে।  এখন বিপিএল চলছে, অনেক বড় টুর্নামেন্ট।  আপাতত আমরা এখানেই মনোযোগ দিচ্ছি।  সব ঠিকঠাক হয়ে গেলে ভালো।  না হলে সেটা বিসিবি ও কোচের ব্যাপার। 

এই বিষয়ে কোনও মন্তব্য করতে না চাইলেও পরক্ষণেই রাজশাহী কিংসের অধিনায়ক জানালেন, ‘আশা করি আল্লাহ যা করবেন, ভালোর জন্যই করবেন।  যত তাড়াতাড়ি সমাধান হয়, তত ভালো।  বিপিএলের পর খুব দ্রুতই আমাদের সিরিজ আছে।  যেটাই হোক, যেন খুব তাড়াতাড়ি মীমাংসা হয়। 

বোর্ড সভাপতি কয়েকদিন আগে জানিয়েছিলেন ক্রিকেটারদের সঙ্গে দ্বন্দ্বের কারণে হয়তো কোচ পদত্যাগপত্র জমা দিতে পারেন! বিষয়টি মুশফিকের কাছে জানতে চাইলে পরিষ্কার করে বলেছেন, ‘এটা যার যার ব্যক্তিগত ব্যাপার।  তিনি যদি মনে করেন কোনও সুনির্দিষ্ট ক্রিকেটার বা দলের কারও ওপর খুশি নন, তাহলে সেটা আলাদা ব্যাপার।  সত্যি বলতে আমরা জানি না তিনি কেন এটা করেছেন।  তিনি নিজেও কারণ জানিয়ে কোনও বিবৃতি দেননি।  তিনি না আসা পর্যন্ত আমাদের কাছেও ব্যাপারটি পরিষ্কার নয়।