৫:০৯ পিএম, ২৪ নভেম্বর ২০১৭, শুক্রবার | | ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

হবিগঞ্জের বাহুবলে এমপি কেয়া চৌধুরী’র উপর হামলা

১১ নভেম্বর ২০১৭, ০৪:৫৫ এএম | সাদি


আখলাছ আহমেদ প্রিয়, হবিগঞ্জ প্রতিনিধি : হবিগঞ্জের বাহুবলে নারী সংসদ সদস্য কেয়া চৌধুরীর উপর হামলা করেছে উপজেলা পরিষদের ভাইস চেয়ারম্যানের সমর্থকরা ।   শুক্রবার বিকেলে উপজেলার মিরপুরস্থ বেদে পল­ীতে এ হামলার ঘটনা ঘটে।  ঘটনার পরপরই তাৎক্ষণিক ভাবে হামলাকারীদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ সভা ও জুতা মিছিল অনুষ্ঠিত হয়েছে। 

এদিকে, হামলায় আহত এমপি কেয়া চৌধুরী  ও মহিলালীগ নেত্রী রাহেলা আক্তারকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হলে।  এমপি কেয়া চৌধুরী মেডিকেলের আইসিইউতে রাখা হয়।  স্থানীয় ও পুলিশ জানায়, হবিগঞ্জ-সিলেটের দায়িত্বপ্রাপ্ত সংসদ সদস্য কেয়া চৌধুরী এমপি শুক্রবার বিকেলে মিরপুরস্থ বেদে পল­ীতে আর্থিক সহায়তা প্রদান করতে যান।  এ উপলক্ষে পার্শ্ববর্তী স্থানে সমাবেশের মঞ্চ তৈরি করা হয়।  এক পর্যায়ে নব-নির্বাচিত উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান মোঃ তারা মিয়ার সমর্থকরা  মঞ্চ থেকে মাইক খোলে নিয়ে যায়।  এ নিয়ে শুরু হয় হট্টগোল।  তর্কে-বির্তকে জড়িয়ে পড়েন এমপি কেয়া চৌধরী ও তারা মিয়ার সমর্থকরা।  এক পর্যায়ে তারা মিয়ার সমর্থকরা হামলা চালায় কেয়া চৌধুরীসহ তার সঙ্গে থাকা নেতৃবৃন্দের উপর। 

এ সময় আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে এলাকায়।  পরে পুলিশ ও র‌্যাব এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে।  ঘটনার পর তাৎক্ষনিকভাবে প্রতিবাদ সভার আয়োজন করে কেয়া চৌধুরীর সমর্থকরা।  তখন আহত অবস্থায় বক্তৃতা দিতে মঞ্চে দাড়ান কেয়া চৌধুরী।  এ সময় তিনি বক্তৃতারত অবস্থায় জ্ঞান হারিয়ে মাটিতে লুটিয়ে পড়েন।  সাথে সাথে তাকে প্রথমে বাহুবল উপজেলা হাসপাতাল ও পরে ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়। 

এ ঘটনায় উপজেলা মহিলালীগের যুগ্ম-আহব্বায়ক রাহেলা আক্তার ও স্থানীয় ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সভাপতি তৈয়ব আলী আহত হন।  আহত আওয়ামীলীগ নেতা তৈয়ব আলীকে বাহুবল উপজেলা হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে এবং মহিলালীগ নেত্রী রাহেলা আক্তারকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।  পরে এমপি কেয়া চৌধুরী অবস্থা আশংকাজনক হলে তাকে মেডিকেলের আইসিইউতে রাখা হয়।