৯:০৩ এএম, ২৭ মার্চ ২০১৯, বুধবার | | ২০ রজব ১৪৪০




অবিলম্বে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি

বখাটের হাতে নিগৃহীত মুক্তিযোদ্ধা কন্যা মিসফার পাশে মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা

৩০ নভেম্বর -০০০১, ১২:০০ এএম | মোহাম্মদ হেলাল


এসএনএন২৪.কম :পটিয়ার জঙ্গলখাইন ইউনিয়নের নাইখাইন গ্রামের মুক্তিযোদ্ধা কমান্ডার বীর মুক্তিযোদ্ধা নূর মোহাম্মদের একমাত্র মেয়ে বখাটে আহসান টুটুলের হাতে নিগৃহীত স্কুল শিক্ষিকা মিসফা সুলতানাকে দেখতে গেছেন মুক্তিযোদ্ধার সন্তানরা। 


গত ১৫ মার্চ দুপুরে একাত্তরের ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটির কেন্দ্রীয় সহ-সাধারণ সম্পাদক বিশিষ্ট সংগঠক ও লেখক-সাংবাদিক শওকত বাঙালি এবং আমরা মুক্তিযোদ্ধার সন্তান বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক সুরজিত দত্ত সৈকতের নেতৃত্বে তারা চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ২৬ নং ওয়ার্ডে তাকে দেখতে যান এবং চিকিৎসার খোঁজ-খবর নেন।  নেতৃবৃন্দ অবিলম্বে বখাটে আহসান উল্লাহ টুটুলের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করেন। 


এসময় চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক ব্রিগেডিয়ার জেনারেল ডা. মোঃ জালাল উদ্দিন বলেন, চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মুক্তিযোদ্ধা এবং তাদের স্বজনদের সর্বোচ্চ গুরুত্ব দিয়ে দেখে।  হাসপাতালের সমস্ত দরজা শুধু নয়, জানালাও সবসময় তাদের জন্য খোলা।  নিজের বাড়ির মতোই তারা চমেককে ব্যবহার করতে পারে। 


এসময় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন চমেকের গাইনি বিভাগের বিভাগীয় প্রধান ডাঃ শাহানারা চৌধুরী, অর্থোপেডিকস বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক বিভাগীয় প্রধান ডাঃ মোঃ ইকবাল হোসেন, হাড় জোড়া রোগ বিশেষজ্ঞ ট্রমা সার্জন সহকারী অধ্যাপক চন্দন দাশ, ডাঃ মোঃ মিজানুর রহমান চৌধুরী, ডাঃ মোহাম্মদ হোসাইন, মহানগর আওয়ামী লীগ সদস্য সাইফুদ্দিন খালেদ বাহার, আমুস মহানগর সহ-সভাপতি সরফুদ্দিন চৌধুরী রাজু, সাংবাদিক পুরবী দাশ, দক্ষিণ সহ-সভাপতি মোহাম্মদ ইউসুফ, দপ্তর সম্পাদক খোরশেদ আলম বাবলু, শিক্ষা সাংস্কৃতিক সম্পাদক পলক দাশ, রেলওয়ে আহবায়ক ডিকু সিকদার, মোহাম্মদ মেহারব, মোহাম্মদ রাজিম, কাজী ইউসুফ, মাইনুল, মিসফা সুলতানার ভাই মোহাম্মদ রিকু। 

 

 







keya