৩:০২ পিএম, ১৪ নভেম্বর ২০১৮, বুধবার | | ৫ রবিউল আউয়াল ১৪৪০


বান্দরবানে লামা উপজেলা ও পৌর শাখা ছাত্রলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত

১১ নভেম্বর ২০১৭, ০৪:৫৭ পিএম | নকিব


রিমন পালিত, বান্দরবান প্রতিনিধি : ব্যাপক উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্য দিয়ে বান্দরবানের লামা উপজেলা ও পৌর শাখা ছাত্রলীগের সম্মেলন অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। শনিবার উপজেলা পরিষদ চত্বরে বিশাল পরিসরে এ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়। 

সম্মেলন উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা এক পর্যায়ে বিশাল জনসভায় পরিণত হয়। সকালে ১ম পর্বে আলোচনা সভা ও বিকেলে ২য় পর্বে সম্মেলন কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হবে। উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি আব্দুল­াহ আল মামুন এর সভাপতিত্বে সম্মেলনে সম্মানিত অতিথি ছিলেন বাংলাদেশ ছাত্রলীগ সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ। বান্দরবান জেলা ছাত্রলীগের সভাপতি কাউছার সোহাগ সম্মেলনের উদ্বোধন করেন। পৌর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক মংচাইন মার্মার সঞ্চালনায় সম্মেলনে প্রধান অতিথি ছিলেন বান্দরবান জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ক্য শৈ হ্ণা। 

এসময় আরো উপস্থিত ছিলেন,জেলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি এ.কে.এম জাহাঙ্গীর,সাধারণ সম্পাদক মো.ইসলাম বেবী,যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক লক্ষীপদ দাস,উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি আলহাজ্ব মো.ইসমাইল,সাধারণ সম্পাদক বাথোয়াইচিং মার্মা,জেলা পরিষদ সদস্য মোস্তফা জামাল, ফাতেমা পারুল,যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক বিজয় কান্তি আইচ,বাংলাদেশ ছাত্রলীগের স্কুল বিষয়ক সম্পাদক জয়নাল আবেদীন,উপ-গ্রন্থনা ও প্রকাশনা সম্পাদক সাগর হোসেন সোহাগ,সদস্য উসিং হাই রবীন,জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি তৌহিদুর রহমান চৌধুরী রাশেদ,সাঃ সম্পাদক সুজন চৌধুরী সঞ্জয়। এছাড়া চট্টগ্রাম,রাঙ্গামাটি,খাগড়াছড়ি ও কক্সবাজার জেলার ছাত্রলীগের নেতা ও কর্মীরা সম্মেলনে অংশগ্রহণ করেন।  উপজেলা ছাত্রলীগের সভাপতি পদে (৪ জন) মো. শাহীন,মংক্যহ্লা মার্মা,শাহাব উদ্দিন ও রাকীব,সাধারণ সম্পাদক পদে (২ জন) মো.জাহেদুল ইসলাম ও রনি, পৌর সভাপতি পদে (৩জন) বিপ্লব নাথ,মো.ইলিয়াছ পারভেজ ও মো.শামীম,সাধারণ সম্পাদক পদে (৩ জন) সালাউদ্দিন সোহেল,রাজু গাজী ও মো.সুমন নির্বাচনে অংশ নেন। 

বাংলাদেশ ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ বলেন,শিক্ষা,শান্তি ও প্রগতির পতাকাবাহী সংগঠন বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। জাতির মুক্তির স্বপ্নদ্রষ্টা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের হাতে গড়া,জীবন ও যৌবনের উত্তাপে শুদ্ধ সংগঠন,সোনার বাংলা বিনির্মাণের কর্মী গড়ার পাঠশালা বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। বিদ্যার সঙ্গে বিনয়,শিক্ষার সঙ্গে দীক্ষা,কর্মের সঙ্গে নিষ্ঠা,জীবনের সঙ্গে দেশপ্রেম এবং মানবীয় গুণাবলির সংমিশ্রণ ঘটিয়ে বাংলাদেশ ছাত্রলীগ অতিক্রম করেছে পথচলার ৬৯ বছর।  ১৯৪৮ সালের ৪ জানুয়ারি সময়ের দাবিতেই বাংলাদেশ ছাত্রলীগের প্রতিষ্ঠা করেন জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান। 

জন্মের প্রথম লগ্ন থেকেই ভাষার অধিকার,শিক্ষার অধিকার,বাঙালির স্বায়ত্তশাসন প্রতিষ্ঠা, দুঃশাসনের বিরুদ্ধে গণঅভ্যুত্থান,সর্বোপরি স্বাধীনতা ও স্বাধিকার আন্দোলনের ছয় দশকের সবচেয়ে সফল সাহসী সারথি বাংলাদেশ ছাত্রলীগ। তিনি আরো বলেন,আগামী নির্বাচনে ছাত্রলীগের সুদক্ষ নেতৃত্বে বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ পুণরায় সরকার গঠন করবেন।  ভিশন ২০-২১ ও রুপকল্প ২০৪১ বাস্তবায়নে ছাত্রলীগ হবে উন্নয়নের সারথি। আজকের লামা ছাত্রলীগের এই সম্মেলন থেকে শুরু হবে সফলতার জয়গান। আমার ‘ছাত্রলীগ হবে আদর্শের পাঠশালা’। প্রধান অতিথি বলেন,লামা ছাত্রলীগের এই বিশাল জনসভা জানান দিল সু-শৃঙ্খল ও আদর্শ বুকে ধারন আগামীতে ছাত্রলীগের হাত ধরে ক্ষমতায় আসবে আওয়ামীলীগ। তিনি ছাত্রলীগের সম্মেলনের সফলতা কামনা করেন। 


keya