৭:৫৮ এএম, ২২ নভেম্বর ২০১৭, বুধবার | | ৩ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

টেকনাফ সেন্টমার্টিন পর্যটন নৌরুটে আনুষ্ঠানিকভাবে জাহাজ চলাচল শুরু

১৩ নভেম্বর ২০১৭, ০৬:৫১ পিএম | রাহুল


সাইফুদ্দীন মোহাম্মদ মামুন, টেকনাফ প্রতিনিধি: টেকনাফে পর্যটন মৌসুমে নানা প্রতিকূল পরিস্থিতির অবস্থান ঘটিয়ে টেকনাফ-সেন্টমার্টিন নৌরুটে পর্যটক নিয়ে স্বপ্নের প্রবাল দ্বীপ সেন্টমার্টিন যাত্রা করেছে কেয়ারী সিন্দাবাদ। 

১৩ নভেম্বর সকাল ১০টায় টেকনাফ দমদমিয়াস্থ কেয়ারী ট্যুর ট্রাভেলসের জেটি হতে ২শ ৯৪জন পর্যটক এবং প্রায় একশত সেন্টমার্টিনের বাসিন্দা ও কর্মচারীদের নিয়ে, প্রথম নৌজাহাজ কেয়ারী সিন্দাবাদের ক্যাপ্টেন দেলোয়ার হোসাইন সবাইকে স্বাগত জানিয়ে যাত্রা শুরু করেন।  এই প্রথম সফরে সেন্টমার্টিন ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ, টেকনাফ কেয়ারী ট্যুরস ট্রাভেলসের ম্যানেজার মোঃ শাহ আলম, সেলস কো-অর্ডিনেটর আজিজুর রহমান, কাস্টমার সার্ভিস আব্দুল মোক্তাদির সুমন এবং সোহেল, সেন্টমার্টিন ইনচার্জ নুরুল মোস্তফা প্রমুখ পর্যটকদের সাথে সেন্টমার্টিন গমন করেন। 

এই সময় বিআইটিডবিউই প্রতিনিধি দল জাহাজ ঘাট পরিদর্শন করেন।  দুপুর ১২টায় পর্যটক বোঝাই কেয়ারী সিন্দাবাদ নিরাপদে সেন্টমার্টিন জেটিঘাটে পৌঁছেন।  এ সময় দ্বীপের লোকজন পর্যটকদের স্বাগত জানায়। এই ব্যাপারে সেন্টমার্টিন ইউপি চেয়ারম্যান নুর আহমদ প্রতিবেদক সাইফুদ্দীন মোহাম্মদ মামুনকে বলেন, এই পর্যটন জাহাজ চালু হওয়ায় বেকার হয়ে পড়া এলাকাবাসীর কর্মসংস্থান সৃষ্টি হবে তাই আমরা দ্বীপবাসী আনন্দিত। ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি মাহি আলম জানান, দীর্ঘদিন পর হলেও সেন্টমার্টিনে পর্যটন জাহাজ চালু হওয়ায় এলাকাবাসী আনন্দিত।   অত্র ইউনিয়নের মানুষের জীবিকায়নের কার্যক্রম শুরু হওয়ায় সংশ্লিষ্টদের ধন্যবাদ জানাচ্ছি। 

কেয়ারী ট্যুরের সেন্টমার্টিন ইনচার্জ নুরুল মোস্তফা জানান,বিকাল ৩টা ১০মিনিটে সেন্টমার্টিন ভ্রমণে আসা পর্যটকেরা টেকনাফের উদ্দেশ্যে নিরাপদে যাত্রা করেছেন।  কেয়ারী ট্যুরসের ম্যানেজার শাহ আলম বলেন, আল­াহর অশেষ রহমতে অনেক বাঁধা কাটিয়ে আমরা এই পর্যটন মৌসুমে পর্যটকদের প্রথমে দ্বীপে আনতে পেরে খুবই আনন্দিত।  আগামীতেও পর্যটকদের জন্য আমাদের এই প্র্রচেষ্টা অব্যাহত থাকবে বলে জানান।  এদিকে দীর্ঘদিন পর প্রবাল দ্বীপে পর্যটকদের পদচারণা এবং স্থানীয়দের উল­াসে উৎসবমুখর পরিবেশ সৃষ্টি হয়েছে বলে জানা গেছে।