১০:১১ এএম, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৭, শুক্রবার | | ২৬ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯

South Asian College

গোয়েন্দা পুলিশের বিশেষ অভিযানে ০১ লক্ষ ২০ হাজার পিস ইয়াবা উদ্ধার

২০ নভেম্বর ২০১৭, ০৪:৩৬ পিএম | রাহুল


এসএনএন২৪.কম : চট্টগ্রামের বাকলিয়া থানার নতুন ব্রীজ পুলিশ বক্সের সামনে ইয়াবা বহনকারী কাভার্ড ভ্যান থামিয়ে ২০টি কালো স্কচ টেপ দ্বারা মোড়ানো প্যাকেট, প্রতিটি প্যাকেটে ৩০টি নীল রংয়ের বায়ূরোধক পলিব্যাগে ০১ লক্ষ ২০ হাজার পিস ইয়াবা ট্যাবলেট, ১৩০টি ককসিটের বরফযুক্ত মাছভর্তি কার্টুন উদ্ধার সহ ০৩ আসামীকে গ্রেফতার করেছে মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ। 

গ্রেফতারকৃত আসামীরা হলেন, মোঃ মামুন বেপারী, মোঃ শাহাজাহান, মোঃ আনোয়ার। 

রোববার চট্টগ্রাম মহানগর গোয়েন্দা (বন্দর) বিভাগের উপ-পুলিশ কমিশনার মোহাম্মদ শহীদুল্লাহ, পিপিএম এর তত্ত্বাবধানে অতিঃ উপ-পুলিশ কমিশনার (ডিবি-পশ্চিম) এএএম হুমায়ুন কবির ও সহকারী পুলিশ কমিশনার (ডিবি-পশ্চিম) এর নেতৃত্বে পুলিশ পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মোহাম্মদ মহসীন, পিপিএম, পুলিশ পরিদর্শক (নিরস্ত্র) মোঃ কামরুজ্জামান সঙ্গীয় এসআই ফরহাদ হোসেন, এসআই আব্দুর রব, এসআই শিবু প্রসাদ চন্দ, এএসআই বাপ্পু সেন ও ফোর্স সহ গোপন সূত্রে সংবাদ পায় , কক্সবাজার টেকনাফ হতে ০১টি মাছ ভর্তি কাভার্ড ভ্যানে বিশেষভাবে লুকায়িত অবস্থায় (মাদকদ্রব্য) ইয়াবা ট্যাবলেট ঢাকায় পাচার করার উদ্দেশ্যে বহন করছে। 

সংঘবদ্ধ ইয়াবা পাচারকারী সদস্যরা ইয়াবা পাচারের কৌশল পরিবর্তন করে নিজেরা ২/১টি কাভার্ড ভ্যান ক্রয় করে ট্রান্সপোর্টের মালিক হিসেবে পরিচয় প্রদান করে।  কাভার্ড ভ্যান গুলোর বডি তৈরি করার সময় ইয়াবা পাচার করার জন্য মিস্ত্রি দ্বারা গোপন চেম্বার তৈরি করে।  টেকনাফ কক্সবাজার ও চট্টগ্রাম থেকে ঢাকা ও অন্যান্য শহরে কৌশলে ইয়াবা ট্যাবলেট পরিবহনের সময় আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর চোখ ফাঁকি দেওয়ার জন্য পচনশীল দ্রব্য মাছ বহন করে। 

গ্রেফতারকৃত ও পলাতক আসামীদের বিরুদ্ধে বাকলিয়া থানায় নিয়মিত মামলা রুজু করা হয়েছে।