১১:৪৯ পিএম, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০১৮, মঙ্গলবার | | ১৪ মুহররম ১৪৪০


ফুলবাড়ীতে আখেরী মোনাজাতের মধ্যে শেষ হল ৩দিন ব্যাপী ইজতেমা

০৯ সেপ্টেম্বর ২০১৮, ০৫:২০ পিএম | জাহিদ


মো.আশরাফুল আলম, ফুলবাড়ী (দিনাজপুর) প্রতিনিধি : আখেরী মোনাজাতের মধ্য দিয়ে গত শনিবার শেষ হয়েছে দিনাজপুরের ফুলবাড়ীতে আয়োজিত ৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমা। 

ফুলবাড়ী উপজেলার উপজেলার ২নং আলাদিপুর ইউনিয়নের ভিমলপুর ঈদগাহ মাঠে আয়োজিত ৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমার আখেরী মোনাজাত পরিচালনা করেন ঢাকার কাঁকরাইল মসজিদের মুরব্বী মাওলানা আব্দুল্লাহ্। 

সকাল থেকেই উপজেলাসহ বিভিন্ন জেলা ও উপজেলা থেকে বিভিন্ন যানবাহনে ধর্মপ্রাণ মুসল্লীরা ইজতেমা ময়দানে সমবেত হতে শুরু করেন।  আখেরী মোনাজাত শুরু হওয়ার পূর্বেই ইদগাহ মাঠসহ আশপাশের এলাকা কানায় কানায় পূর্ণ হয়ে যায় মুসল্লীদের ভারে।  মোনাজাত শুরুর সাথে সাথে যে যেখানে অবস্থান করেন সেখানেই দাঁড়িয়ে আখেরী মোনাজাতে অংশ নেন।  আল্লাহ্র ধ্বণীতে আকাশ-বাতাস মুখরিত হয়ে ওঠে।  

৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমার আয়োজকদের অন্যতম সহকারি অধ্যাপক শেখ সাবীর আলী বলেন, মাওলানা আব্দুল্লাহ্’র আখেরী মোনাজাতের মধ্য দিয়ে শেষ হয়েছে ফুলবাড়ীতে আয়োজিত ৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমা।  আখেরী মোনাজাতে প্রায় ৩ লাখ মুসল্লী অংশগ্রহণ করেন।  বৃহস্পতিবার (৬সেপ্টেম্বর) আমবয়ানের মধ্য দিয়ে জেলা ইস্তেমা শুরু হয়। 

এদিকে তিনদিন ব্যাপী জেলা ইজতেমার আখেরী মোনাজাতে অংশ নেওয়ার কারণে ফুলবাড়ী পৌর শহর জনশূন্য হয়ে পড়ে।  উপজেলার শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানগুলোতে শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিও ছিল নগণ্য। 

আখেরী মোনাজাতে অংশ নেওয়া ফুলবাড়ীর স্থানীয় ব্যাক্তিবর্গ বলেন, ফুলবাড়ীতে ৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমা অনুষ্ঠিত হওয়া আমাদের সকলের জন্য ভাগ্যের ব্যাপার।  এমন একটি ইজতেমার আখেরী মোনাজাতে অংশ নিতে পেরে আমরা নিজেকে ধন্য মনে করি।  আল্লাহর রহমতের জন্য আখেরী মোনাজাতে ব্যাপক সংখ্যক মানুষের অংশহণের জন্য ইজতেমা ময়দানসহ আশপাশের এলাকায় তিল ধরার জাগয়া ছিল না।  

ফুলবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) শেখ নাসিম হাবীব বলেন, ইজতেমার সার্বিক আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য দিনাজপুর জেলা পুলিশ সুপারের নির্দেশে ৩দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমা’র শান্তিশৃঙ্খলা রক্ষায় একজন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেটের নেতৃত্বে ৩জন পুলিশ পরিদর্শক (ইন্সপেক্টর), ১০জন উপ-পরিদর্শক (এসআই), ২০উপ-সহকারি পুলিশ পরিদর্শকসহ (এএসআই) ১৫০জন পুলিশ সদস্য দায়িত্ব পালন করেন। 

এ ছাড়াও র‌্যাবের টহলদল সার্বক্ষণিকভাবে ইজতেমা ময়দানসহ আশপাশের এলাকায় টহল দেয়।  সার্বিকভাবে অত্যন্ত শান্তিপূর্ণ এবং ধর্মীয় ভাবগম্ভীর পরিবেশে ৩ দিন ব্যাপী জেলা ইজতেমা শেষ হয়েছে।