২:৩৬ পিএম, ১৫ নভেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪০




নোবিপ্রবি ভর্তি পরিক্ষার্থীদের জন্য মেয়রের ব্যাতিক্রমি অাতিথীয়তা

২৬ অক্টোবর ২০১৮, ০৩:০৬ পিএম | মাসুম


অারিফ সবুজ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি : নোয়াখালী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রথম বর্ষে ভর্তি পরীক্ষা দিতে আসা শিক্ষার্থীদের জন্য থাকার ব্যবস্থা করেছে সদর উপজেলা পরিষদ ও পৌরসভা। 

২০১৮-১৯ শিক্ষাবর্ষে ভর্তির জন্য তিন দিনব্যাপী পরীক্ষা শরু হয়েছে শুক্রবার।  চলবে রোববার পর্যন্ত। 

বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, এবার ৩০টি বিষয়ের এক হাজার ৩২০ আসনের বিপরীতে ভর্তি জন্য আবেদন জমা পড়েছে ৭০ হাজার ২৯৮টি। 

সে হিসাবে প্রতি আসনের জন্য পরীক্ষায় বসবেন ৫৩ জন শিক্ষার্থী। বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাস ছাড়াও জেলা সদর এবং বেগমগঞ্জের ২৯টি কেন্দ্রে ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। 

সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শিহাব উদ্দিন শাহিন বলেন, ভর্তি পরীক্ষায় অংশগ্রহণের উদ্দেশ্যে দেশের বিভিন্ন অঞ্চল থেকে নোয়াখালীতে শিক্ষার্থী ও তাদের অভিভাবক মিলিয়ে প্রায় দেড়লক্ষ অতিরিক্ত মানুষের সমাগম হচ্ছে। 

এই বিপুল সংখ্যক মানুষকে কোনোভাবেই আবাসিক হোটেল বা সরকারি-বেসরকারি গেস্ট হাউজে জায়গা দেওয়া সম্ভব না। 

“তাই মানবিক দিক বিবেচনা করে তাদের জন্য সদর উপজেলা পরিষদ, উপজেলা চেয়ারম্যানের বাসা, রেড ক্রিসেন্ট ভবন, এফপিএনবিসহ বিভিন্ন স্থানে থাকার ব্যবস্থা করা হয়েছে। ”

বৃহস্পতিবার রাতে উপজেলা চেয়ারম্যান নিজ উদ্যোগে শিক্ষার্থীদের খাওয়ার ব্যবস্থা করেছেন বলেও জানান তিনি। 

নোয়াখালী পৌরসভা মেয়র সহিদ উল্লাহ খাঁন সোহেল বলেন, পৌরসভার চারটি স্থানে (মাইজদী বাজার সোনালী ব্যাংকের সামনে, পুরাতন বাসস্ট্যান্ড, টাউন হল মোড় ও সোনাপুর রেল স্টেশনের পাশে) শিক্ষার্থীদের জন্য তথ্য সেবাকেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে। 

“এছাড়া শিক্ষার্থীদের রাতে থাকার জন্য পৌর এলাকায় অবস্থিত সকল মসজিদ ও মাদ্রাসায় ব্যবস্থা করা হয়েছে।  যারা এসব স্থানেও জায়গা পাবেন না (বিশেষ করে ছাত্রী) তাদের জন্য পৌরসভা কার্যালয়ের তৃতীয় তলা ও মেয়রের বাড়িতে আবাসনের ব্যবস্থা করা হয়েছে। 

তিনি আরও জানান, শিক্ষার্থীদের সুবিধার্থে প্রতিটি পরীক্ষা কেন্দ্রে বিশুদ্ধ পানির ব্যবস্থা, যাতায়াতের সুবিধার্থে জাতীয় পতাকা সম্বলিত মোটরবাইকের ব্যবস্থা ছাড়াও প্রত্যেক পরীক্ষার্থীকে পৌরসভার লগো সম্বলিত কলম দেওয়া হবে। 



keya