২:৪৭ পিএম, ১৫ নভেম্বর ২০১৮, বৃহস্পতিবার | | ৬ রবিউল আউয়াল ১৪৪০




বাংলাদেশে চিনি রফতানিতে শুল্কমুক্ত সুবিধা চায় ভারত : বাণিজ্যমন্ত্রী

০২ নভেম্বর ২০১৮, ০৯:১৩ এএম | জাহিদ


এসএনএন২৪.কম : বাংলাদেশে চিনি রফতানিতে শুল্কমুক্ত সুবিধা চেয়েছে ভারত।  বৃহস্পতিবার (১ নভেম্বর) সচিবালয়ে বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদের সঙ্গে দেখা করে এ দাবি জানিয়েছেন সে দেশের ‘ফুড অ্যান্ড পাবলিক ডিস্ট্রিবিউশন’র সেক্রেটারি শ্রী রভিকান্ত। 

দুপুরে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সম্মেলন কক্ষে এ তথ্য জানিয়েছেন বাংলাদেশের বাণিজ্যমন্ত্রী।  তিনি বলেন, ভোক্তাদের কথা ভেবে বাংলাদেশ এটা নিয়ে চিন্তা করছে। 

তিনি বলেন, ভারত বাংলাদেশে চিনি রফতানিতে শুল্কমুক্ত সুবিধা চায়।  এজন্য শুক্রবার (২ নভেম্বর) ট্রেডিং করপোরেশন অব বাংলাদেশ বা টিসিবি এবং সে দেশের ‘এসটিসি’র মধ্যে একটি সমঝোতা স্বাক্ষর হবে। 

মন্ত্রী বলেন, আমরা ‘সাফটা’র আওতায় ‘এলডিসি’ভুক্ত দেশ হিসেবে ভারতে শুল্ক ও কোটামুক্ত সুবিধা পেয়ে থাকি।  ভারত এখন আমাদের কাছে চিনি রফতানিতে শুল্কমুক্ত সুবিধা দাবি করছে।  বর্তমানে বাংলাদেশে চিনি আমদানি পণ্য হিসেবে ‘নেগেটিভ’ লিস্টে আছে এবং এজন্য আমদানিকারককে ৪০ শতাংশ শুল্ক দিতে হয়।  তারা চিনিকে পজেটিভ লিস্টে আনার জন্যও অনুরোধ করেছে। 

তোফায়েল আহমেদ বলেন, ভারতে ভোজ্যতেল রফতানিতে বর্তমানে বাংলাদেশ ভালো করছে।  এরইমধ্যে সিটি গ্রুপ, বসুন্ধরা, মেঘনা গ্রুপ, টিকে ও সেনাকল্যানকে ভোজ্যতেল রফতানির অনুমোদন দেওয়া হয়েছে। 

ভারত বলছে, ভোজ্যতেল রফতানিতে আমদানির পর যেন আরও ৩০ ভাগ মূল্যসংযোজন করা হয়।  বর্তমানে এ খাতে বাংলাদেশ শুল্কমুক্ত সুবিধা পাচ্ছে।  পাটপণ্য রফতানিতে এন্টি ডাম্পিং নিয়েও কথা হয়েছে।  এটা সম্ভবত থাকছে না।  ভারতও এটা নিয়ে চিন্তা করছে বলে জানান তিনি।