১:১৯ পিএম, ১২ জুলাই ২০২০, রোববার | | ২১ জ্বিলকদ ১৪৪১




সমস্যার আবর্তে রাঙামাটি বিসিক শিল্পনগরী চেয়ারম্যান বরাবরে তুলে ধরলেন মালিকরা

৩০ নভেম্বর -০০০১, ১২:০০ এএম | মোহাম্মদ হেলাল


এম.কামাল উদ্দিন, রাঙামাটি : মূলধন ও ঋণ সুবিধা, বিদ্যুৎ, পানি, নিরাপত্তার অভাবসহ নানা সমস্যার আবর্তে রাঙামাটির মানিকছড়ি বিসিক শিল্পনগরী।  উত্তরণে সহায়তার জন্য বিসিক চেয়ারম্যান বরাবরে সমস্যাগুলো তুলে ধরেছেন মালিকরা। 

শুক্রবার রাঙামাটি ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশনের সম্মেলন কক্ষে অনুষ্ঠিত এক প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপণী অনুষ্ঠানে চেয়ারম্যান বরাবরে লিখিত আকারে এসব সমস্যার কথা তুলে ধরে রাঙামাটি বিসিক শিল্প মালিক সমিতি লিমিটেড। 

রাঙামাটিতে ২৮-৩০ ডিসেম্বর ‘ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্পের উৎপাদশীলতা উন্নয়ন’ শীর্ষক তিন দিন ব্যাপী এক প্রশিক্ষণ কোর্স শুত্রবার শেষ হয়।  বাংলাদেশ ক্ষুদ্র ও কুটির শিল্প কর্পোরেশন (বিসিক) এবং শিল্প মন্ত্রণালয়ের ন্যাশনাল প্রোডাক্টিভিটি অর্গানাইজেশন (এনপিও) এ প্রশিক্ষণ কোর্সের আয়োজন করে। 

স্থানীয় উদ্যোক্তারা এ প্রশিক্ষণ কোর্সে অংশ নেন।  বিকাল সাড়ে ৫টায় বিসিকের রাঙামাটির সহকারী মহা-ব্যবস্থাপক স্বপন কুমার ত্রিপুরার সভাপতিত্বে এ প্রশিক্ষণ কোর্সের সমাপণী ও সনদ বিতরণী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, বিসিক চেয়ারম্যান মুশতাক হাসান মুহাম্মদ ইফতেখার।  এছাড়া বিসিক ঢাকার প্রধান কার্যালয়ের প্রকল্প পরিচালক প্রকৌশলী মো. শফিকুল আলম, উর্ধ্বতন কর্মকর্তা নাজিমুল আবেদীন, এনপিও’র উর্ধ্বতন কর্মকর্তা আরিফুজ্জামানসহ অন্যরা বক্তব্য রাখেন। 

এ সময় বিসিক চেয়ারম্যান বরাবরে রাঙামাটির বিসিক শিল্পনগরীর বিভিন্ন সমস্যার কথা লিখিত আকারে পেশ করে রাঙামাটি বিসিক শিল্প মালিক সমিতি লিমিটেড। 

সমিতির সভাপতি মো. সাইফুল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক তপন কান্তি পাল স্বাক্ষরিত আবেদনপত্রে বলা হয়, রাঙামাটির মানিকছড়ি বিসিক শিল্পনগরীর জন্য বরাদ্দ করা প্লটগুলোয় বর্ষা মৌসুমে ৩-৪ মাস ধরে জলাবদ্ধতায় থাকে।  এ কারণে কারখানা স্থাপনার কাজ সম্ভব হয় না।  এছাড়া শিল্প স্থাপনে স্বল্পসুদে ঋণের কোনো ব্যবস্থা নেই। 

ফলে মূলধনের অভাবে আগ্রহী উদ্যোক্তারা কারখানা স্থাপনে সফল হতে পারছেন না।  মানিকছড়ি বিসিক শিল্পনগরীর চারপাশে বস্তির অবস্থান বিদ্যমান।  তাই নিরাপত্তার স্বার্থে দরকার সীমানা প্রাচির নির্মাণ।  এছাড়া এই বিসিক শিল্প এলাকায় আলাদা কোনো বৈদ্যুতিক ব্যবস্থা নেই।  যোগাযোগ ব্যবস্থা খুবই খারাপ।  পানি সরবরাহের কোনো ব্যবস্থাও নেই। 

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিসিক চেয়ারম্যান বলেন, দেশের অর্থনৈতিক উন্নয়নে শিল্প মালিক ও উদ্যোক্তাদের ভূমিকা অনস্বীকার্য।  আগ্রহী উদ্যোক্তারা শিল্প স্থাপনে এগিয়ে এলে যথাসম্ভব সহায়তা দেয়া হবে।  তবে পরিকল্পনা বাস্তবায়নের জন্য প্রশিক্ষণের বিকল্প নেই। 

তিনি বলেন, শিল্পায়নে সম্ভাবনার এলাকা রাঙামাটি।  আমরা রাঙামাটিকে শিল্পায়নে আনতে চাই।  সেজন্য সরকারের পরিকল্পনা রয়েছে।  ইতিমধ্যে রাঙামাটি সদরে মানিকছড়ি বিসিক শিল্পনগরী প্রতিষ্ঠা করা হয়েছে।  এই শিল্পনগরীর উন্নয়নে যেসব বিদ্যমান সেগুলো সমাধানের জন্য সরকারের কাছে প্রস্তাবনা দেয়া হবে।  কতদূর বাস্তবায়ন সম্ভব, তা এই মুহূর্তে প্রতিশ্রুতি দিতে পারব না।  তবে উদ্যোক্তারা এগিয়ে এলে সব সমস্যা মোকাবেলার সম্ভব।  অনুষ্ঠানের শেষে প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে সনদ বিতরণ করেন বিসিক চেয়ারম্যান। 

সম্পাদনায় - নিশি / এসএনএন২৪.কম