১:৩১ এএম, ১৯ জুলাই ২০১৯, শুক্রবার | | ১৬ জ্বিলকদ ১৪৪০




রাউজানে যাত্রী সেজে ছিনতাইকারী সিন্ডিকেটের চার সদস্য আটক

১৮ জুন ২০১৯, ১০:০৬ এএম | নকিব


প্রদীপ শীল, রাউজান প্রতিনিধি: চট্টগ্রাম-কাপ্তাই সড়কে যাত্রী সেজে ছিনতাইকারী সিন্ডিকেটের চার সদস্যকে আটক করেছে রাউজান থানা পুলিশ। 

ধৃত ৪ আসামীকে সোমবার (১৭জুন) কোর্টের মাধ্যমে চট্টগ্রাম কেন্দ্রীয় কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।  

ধৃত ছিনতাইকারীরা হলেন, বাঁশখালি উপজেলার ইলশা ইউনিয়নের ৪ নম্বর ওয়ার্ডের মাস্টার বাড়ির মো. ইউনুছের পুত্র মো. আরমান (২৩), বোয়ালখালী উপজেলার কদুরখীল ইউনিয়নের পাঠান পাড়া গ্রামের শেখ বাড়ির মো. নাছেরের পুত্র মহিউদ্দিন শরীফ (২৪), বোয়ালখালী উপজেলার চরনদ্বীপ ইউনিয়নের সৈয়দ নগর গ্রামের মোনাফ মাস্টারের বাড়ির মো. আবুল কালাম আজাদের পুত্র ইমন (১৯) ও নোয়াখাীল জেলার সুধারাম থানার সোনাপুর ইউনিয়নের ললু ভুইয়ার হাট গ্রামের মাহমুদুল হকের পুত্র সিনএজি টেক্সী চালক মো. রিপন (২০)। 

ছিনতাইকারীদের বরাদ দিয়ে পুলিশ জানিয়েছে, সন্ধ্যার পর পরই সিএনজি টেক্সী নিয়ে রাতে বের হয়ে পড়তো ওরা।  যাত্রী সেজে ছিনতাই করা ওদের পেশা।  সাথে থাকতো ছুরিও।  চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে (চুয়েট) ইইই’১৭ বিভাগের ছাত্র জিয়ন আহমেদ গত শনিবার (১৫ জুন) রাত ১১টায় রাস্তার মাথা থেকে সিএনজি টেক্সী যোগে চুয়েট ক্যাম্পাসে যাওয়ার সময় উরকিরচর ইউনিয়নের মাইজ্জে মিয়ার ঘাটা এলাকায় চালকসহ যাত্রী ছদ্মবেশী ৪ জনের মধ্যে একজন কোমড় থেকে ছুরি বের করে ভয়-ভীতি প্রদর্শন করে এক হাজার দুইশত ত্রিশ টাকা ছিনিয়ে নেয়। 

ঘটনাস্থলে লোকজনের উপস্থিতি দেখে ছিনতাইকারীরা পালিয়ে যায়।  পরে চট্টগ্রাম-কাপ্তাই সড়কের টহল পুলিশকে সব খুলে বলেন ওই চুয়েট ছাত্র।  পুলিশ তাৎক্ষনিক অভিযান চালিয়ে সিএনজি টেক্সী চালক আরমানকে আটক করে। 

পরে সিএনজি টেক্সী চালককে সঙ্গে নিয়ে অভিযান চালিয়ে ছিনতাইকারী সিন্ডিকেটের আরো ৩জনকে আটক করে পুলিশ।  ছিনতাইয়ে ব্যবহৃত সিএনজি টেক্সী (চট্টগ্রাম-থ-১২-০১৯১) ও একটি ছুরি ও চুয়েট ছাত্রের কাছ থেকে ছিনতাইকৃত এক হাজার দুইশত ত্রিশটাকা উদ্ধার করা হয়েছে।