৩:৩১ পিএম, ১৮ সেপ্টেম্বর ২০১৯, বুধবার | | ১৮ মুহররম ১৪৪১




যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী

বনের হয়রানি মামলা দেয়া হলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবেনা :

০১ সেপ্টেম্বর ২০১৯, ০১:৫৬ পিএম | নকিব


মোঃ রমজান আলী, গাজীপুর প্রতিনিধি : বন বিভাগের বিরুদ্ধে রাস্তা বন্ধ ও মিথ্যা মামলায় হয়রানির প্রতিবাদে গাজীপুরে বিক্ষোভ ও প্রতিবাদ সভা করেছে ভুক্তভোগী প্রায় ২শ’ পরিবার। 

দুপুরে  মহানগরের পোড়াবাড়ি এলাকায় এ প্রতিবাদ সভায় অনুষ্ঠিত হয়।  এ সময় প্রতিবাদ সভায় একাতত্বা প্রকাশ করে যোগ দেন স্থানীয় সাংসদ সদস্য যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী জাহিদ আহসান রাসেল। 

তিনি বলেন, অসহায় নির্দোষ কোন মানুষকে হয়রানী করা হলে কাউকে ছাড় দেওয়া হবে না।  এ সময় তিনি সরোজমিনে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন । 

এ সময় এলাকাবাসী বলেন,বন কর্মকর্তাদের চাঁদাদাবি, গ্রেফতার বাণিজ্য ও তাদের দীর্ঘ দিনের রাস্তা এফ ডি পিলার পুঁতে দেয়া হয় ফলে যাতায়াতে চরম ভোগান্তিতে পড়তে হয় এলাকাবাসীর।  স্কুল কলেজ থেকে শুরু করে হাসপাতাল এবং কমিউনিটি ক্লিনিকে রোগী সেবা নিতে এবং ক্লিনিকের ঔষধ সরবরাহের গাড়ি চলাচল না করতে পারায় চরম ভোগান্তি পোহাতে হয়। 

জমিতে গড়ে উঠা বাড়ি ঘরের কোনো প্রকার সংস্কার বা মেরামত কাজ করতে গেলে বন বিভাগের কিছু অসাধু কর্মকর্তা টাকা দাবি করে।  দাবিকৃত টাকা না দিলে এবং দিতে না চাইলে বন বিভাগের অন্য কোনো মামলায় আসামি করে দেয়।  আবার অনেককে ধরে নিয়ে যায় এবং মোটা অংকের টাকা দিয়ে ছাড়িয়ে আনতে হয়। 

প্রতিবাদ সভায় সভাপতিত্ব করেন গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের যুগ্মসাধারণ সম্পাদক আতাউল্লাহ মন্ডল , এসময় আরো বক্তব্য রাখেন গাজীপুর মহানগর আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি অ্যাডভোকেট ওয়াজউদ্দিন মিয়া , এবং মহানগর আওয়ামী লীগের স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি  বাবু সনজিৎ মল্লিক, বীর মুক্তিযুদ্ধা খালেকুজ্জামান, হেদায়েতুল ইসলাম এবং আবুল বাশার,গাজীপুর সিটি কর্পোরেশনের ২২ নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলর মোশারফ হোসেন ,  এডভোকেট সাইফুল ইসলাম । 

এ সময় আরো উপস্থিত ছিলেন অধ্যাপক বিল্লাল হোসেন মফিজুল ইসলাম এবং সাখাওয়াত হোসেন প্রমুখসহ ভুক্তভোগী অনেকে। এ সময় বিপুল সংখ্যক মানুষ অংশ নেয় সভায়। 


keya