১২:২০ পিএম, ৭ এপ্রিল ২০২০, মঙ্গলবার | | ১৩ শা'বান ১৪৪১




তুরস্কের কাফকাস বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে ইবির শিক্ষক-শিক্ষার্থী বিনিময় চুক্তি

০১ ফেব্রুয়ারি ২০২০, ০৬:১৭ পিএম | নকিব


মুনজুরুল ইসলাম নাহিদ, ইবি প্রতিনিধি : তুরস্কের কাফকাস বিশ্ববিদ্যালয়ের সাথে ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়ের (ইবি) শিক্ষা ও গবেষণা সংক্রান্ত এক সমঝোতা চুক্তি স্বাক্ষরিত হয়েছে।  এর মাধ্যমে নিজেদের মাঝে শিক্ষক-শিক্ষার্থী বিনিময় করবে বিশ^বিদ্যালয় দুটি। 

বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৩ টি বিভাগ হতে প্রতি বছর কমপক্ষে ৫২ জন শিক্ষক-শিক্ষার্থী এ সুযোগ পাবেন। 

শনিবার উপচার্য অধ্যাপক ড. হারুন উর রশিদ আসকারীর নিকট চুক্তিনামা হস্তান্তর করেন বিশ^বিদ্যালয়ের ইন্টারন্যাশলান অ্যাফেয়ার্স ডিভিশনের পরিচালক অধ্যাপক ড. শাহাদাৎ হোসাইন আজাদ।  এসময় উপ-উপাচার্য অধ্যাপক ড. শাহিনুর রহমান, কোষাধ্যক্ষ অধ্যাপক ড. সেলিম তোহা ও রেজিস্ট্রার (ভারপ্রাপ্ত) এস এম আব্দুল লতিফ ও আইআইইআর এর পরিচালক অধ্যাপক ড. মেহের আলী উপস্থিত ছিলেন। 

চুক্তি অনুযায়ী শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা ডিপ্লোমা অনার্স, মাস্টার্স ও পিএইডি প্রোগ্রামে ‘মেভলোনা এক্সচেঞ্জপ্রোটোকল’ প্রজেক্টের আওতায় উচ্চ শিক্ষা ও গবেষণা সম্পাদন করবেন।  তুরস্কের পক্ষ থেকে দুই দেশের শিক্ষার্থীদের বিনিময়ের সকল শিক্ষা খরচ বহন করা হবে।  আগামী পাঁচ বছরের জন্য চুক্তিটি  স্বাক্ষরিত হয়। 

প্রজেক্টটিতে সুযোগ পাওয়া বিভাগগুলো হলো, ইংরেজি ভাষা ও সাহিত্য, আরবি ভাষা ও সাহিত্য, চারুকলা, রাষ্ট্রবিজ্ঞান, অর্থনীতি, বিজনেস স্টাডিজ এন্ড ম্যানেজমেন্ট সায়েন্স, মার্কেটিং, ট্যুরিজম এন্ড হসপিটালিটি ম্যানেজমেন্ট, কম্পিউটার সায়েন্স,কেমিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং, ফুড সায়েন্স এন্ড টেকনোলজি, এনভাইরনমেন্টাল সায়েন্স এন্ড জিওগ্রাফি ও গণিত। 

সমঝোতা চুক্তি  সম্পর্কে উপাচার্য ড. রাশিদ আসকারী বলেন, ‘ইসলামী বিশ^বিদ্যালয় প্রতিদিন একটু একটু করে সামনের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে।  তারই ধারাবাহিকতায় এ সমঝোতা চুক্তি।  এর মাধ্যমে বিশ^বিদ্যালয়ের শিক্ষক-শিক্ষার্থীদের উচ্চ শিক্ষা ও গবেষণায় নতুন মাত্র যুক্ত হলো।  এটি আমাদের একটি বড় অর্জন। ৃ