১০:৪১ পিএম, ১৭ আগস্ট ২০২২, বুধবার | | ১৯ মুহররম ১৪৪৪




নিত্যপণ্যের দাম যেন আগ্নেয়গিরি ক্রেতারা অসহায়

০৫ মার্চ ২০২২, ১১:১৮ এএম |


নকিব ছিদ্দিকী:

নিত্যপণ্যের দাম প্রতিনিয়ত ঊর্ধ্বমুখী।  দামে যেন আগ্নেয়গিরি , আসহায় হয়ে পড়েছে ক্রেতারা।  এমনকি শীতকালে অন্যান্য সময় বাজার দর কিছুটা নিম্নমুখী থাকলেও এখন বাজারে আলু আর পেঁয়াজ ছাড়া কোথাও দামে স্বস্তি নেই।  কেনাকাটায় কাটছাঁট করতে হচ্ছে নিম্ন ও মধ্যবিত্তদের।  এদিকে ভোজ্যতেল নিয়ে তেলেসমাতির মধ্যে নতুন করে বেড়েছে আটা-ময়দার দাম।  বিক্রেতারা বলছেন, গত এক সপ্তাহে আটা ও ময়দার দাম কেজিতে ২ থেকে ৩ টাকা বেড়েছে।  এছাড়া খোলা সয়াবিন ও পাম তেল সব দোকানে পাওয়া যাচ্ছে না। বাজারে গরুর মাংস ৫৮০ থেকে ৬৫০ টাকা কেজি দরে বিক্রি করতে দেখা গেছে।  গত মাসেও এই দর ৫০০ থেকে ৫৫০ টাকা ছিল।  ব্রয়লার মুরগির দামও কমেনি।  প্রতি কেজি বিক্রি হচ্ছে ১৫৫ থেকে ১৬৫ টাকা।  অপরদিকে বাণিজ্যিক খামারে চাষ করা বিভিন্ন মাছের দাম বেড়েছে কেজিতে ১০ থেকে ৪০ টাকা।  নদী ও খাল বিলের মাছের দাম অন্য সময়ের চেয়ে কেজিতে ৫০ থেকে ৮০ টাকা বেশি চাইছেন বিক্রেতারা।  মাছের কেজি (আকারভেদে) ১৬০ থেকে ১৮০ টাকায় বিক্রি হয়।  বিক্রেতারা জানান, কিছুদিন আগেও এই মাছের কেজি ছিল ১২০ থেকে ১৩০ টাকা।  ২০০ থেকে ২৪০ টাকা কেজিতে বিক্রি হওয়া মাঝারি আকারের রুই, কাতল, মৃগেল ও কালবাউশের দাম এখন ২৭০ থেকে ৩০০ টাকা। 


keya